রামোস-রিয়ালের ভুলে যাওয়ার রাত

রামোস-রিয়ালের ভুলে যাওয়ার রাত

সার্জিও রামোস একটি পেনাল্টি মিস করেছেন, একটি আত্মঘাতী গোল করেছেন এবং পেনাল্টি থেকে একটি গোলও করেছেন। অধিনায়কের মতো রিয়াল মাদ্রিদের রাতটাও গেছে ভুলে যাওয়ার মতো, সেভিয়ার মাঠে হেরে গেছে ৩-২ গোলে।

এই হারে লা লিগার পয়েন্ট টেবিলে তিন নম্বরেই থাকল রিয়াল মাদ্রিদ। ৩৬ ম্যাচে তাদের ৭২ পয়েন্ট, ৭৫ পয়েন্ট নিয়ে অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদ দুইয়ে, ৯০ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে আছে আগেই শিরোপা জেতা বার্সেলোনা।

প্রতিপক্ষের মাঠে বুধবার রাতে নিয়মিত একাদশের অনেক খেলোয়াড়কে ছাড়াই খেলতে নেমেছিল রিয়াল মাদ্রিদ। গত রোববারের এল ক্লাসিকো থেকে সাতটি পরিবর্তন এনেছিলেন রিয়াল মাদ্রিদ কোচ জিনেদিন জিদান। ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো, গ্যারেথ বেল, টনি ক্রুস, লুকা মডরিচরা ছিলেন না দলে।



ছন্দহীন ফুটবল খেলা রিয়াল মাদ্রিদ ২৬ মিনিটেই গোল হজম করে। সেভিয়াকে এগিয়ে দেন বেন ইয়াদার। প্রথমার্ধের একেবারে শেষ মিনিটে স্বাগতিকদের হয়ে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন লায়ুন। ফলে ২-০ গোলে পিছিয়ে থেকে বিরতিতে যায় রিয়াল।

দ্বিতীয়ার্ধে ম্যাচের ৫৯ মিনিটে পেনাল্টি পেয়েছিল রিয়াল মাদ্রিদ। কিন্তু পেনাল্টি থেকে গোল করতে পারেননি রামোস। রিয়াল অধিনায়কের জোরালো শট ক্রসবারে লেগে ফেরে।



উল্টো ৮৪ মিনিটে আত্মঘাতী গোল করে বসেন রামোস। লায়ুনের শট বিপদমুক্ত করতে গিয়ে নিজেদের জালেই বল জড়ান রিয়াল অধিয়ানায়ক। লা লিগায় এই নিয়ে দুটি আত্মঘাতী গোল করলেন রামোস, দুটিই তার শৈশবের ক্লাব সেভিয়ার বিপক্ষে।

৮৭ মিনিটে বরজা মায়োরালের গোলে ব্যবধান কমায় রিয়াল মাদ্রিদ। যোগ করা সময়ে আরেকটি পেনাল্টি পায় রিয়াল। এবার গোল করতে ভুল করেননি রামোস। কিন্তু তার এই গোলে রিয়ালের পরাজয়ের ব্যবধানই শুধু কমে