স্বাগত ২০১৮

স্বাগত ২০১৮

গ্রেগরিয়ান বর্ষ পঞ্জি থেকে বিদায় নিল ২০১৭ সাল। শুরু হলো নতুন বছর ২০১৮ সাল। পুরনো বছরে যেমন ব্যর্থতা ছিল, তেমনি ছিল অনেক সাফল্যও। বিগত সময়ে অনেক ক্ষেত্রেই আমাদের উন্নয়ন- অগ্রগতির চিত্র আশানুরূপ হলেও কোনো কোনো ক্ষেত্রে বিবর্ণ চিত্র উদ্বেগ উৎকণ্ঠার মাত্রা বাড়িয়েছে। অর্থনীতি, শিক্ষা, তথ্য প্রযুক্তি ইত্যাদি ক্ষেত্রে আমাদের যে অগ্রগতি পরিলক্ষিত হয়েছে নানা প্রতিকূলতা ডিঙ্গিয়ে তা নতুন আশার সঞ্চার করেছে বৈকি। কিন্তু রাজনীতি, আইন শৃঙ্খলা পরিস্থিতি, বাজার পরিস্থিতি সহ জনজীবনের সঙ্গে ওৎপ্রোতভাবে জড়িত কিছু বিষয়ের সার্বিক চিত্র অনুকূল। মিয়ানমারের রাখাইন থেকে আসা ১০ লাখ রোহিঙ্গা শরণার্থী আমাদের অর্থনীতির ওপর ভারি বোঝা হয়ে উঠেছে। সরকারের কূটনৈতিক উপায়ে এ সংকট থেকে পরিত্রাণের পথ খোঁজা আন্তর্জাতিকভাবে প্রশংসিত হয়েছে। অনেক প্রতিকূলতা, প্রতিবন্ধকতা ডিঙ্গিয়ে উন্নয়নের প্রায় সব সূচকেই বাংলাদেশের নতুন আশা জাগায়।

 গ্যাস-বিদ্যুতের পাশাপাশি কৃষি খাতের অগ্রগতিও ছিল উল্লেখযোগ্য। স্বপ্নের পদ্মা সেতু ক্রমেই দৃশ্যমান হয়ে উঠছে। গ্যাস ও বিদ্যুতের পাশাপাশি কৃষি খাতের অগ্রগতিও ছিল উল্লেখযোগ্য। প্রবাসী কর্মসংস্থান ও রেমিটেন্সে রেকর্ড সৃষ্টি হয়েছে। তবে নানা খাতে দুর্নীতি, কেলেংকারি কমেনি। ব্যাংক খাতে ছিল চরম নৈরাজ্যকর পরিস্থিতি। বছর জুড়ে হত্যা, গুম, নিখোঁজ, ধর্ষণ-নির্যাতন বিষয়ক নানা নেতিবাচক ঘটনা মানুষকে উদ্বিগ্ন করেছে। আমরা গত বছরে দেশ বরেণ্য অনেককে হারিয়েছি, যারা শিক্ষা-সংস্কৃতি, রাজনীতি, গণমাধ্যম, অর্থনীতিসহ নানা ক্ষেত্রে অবদান রেখে গেছেন। গভীর শ্রদ্ধায় আমরা তাদের স্মরণ করি। পুরনো বছরে সব দুঃখ-বেদনা, ব্যর্থতাকে ঝেড়ে ফেলে শান্তি ও সমৃদ্ধির পথ ধরে এগিয়ে চলার নতুন প্রত্যয়ে শুরু হোক নতুন বছর। আমাদের পাঠক, গ্রাহক, বিজ্ঞাপনদাতা ও শুভানুধ্যায়ীদের নতুন বছরের শুভেচ্ছা। আমাদের চলার সব পথ হোক কুসুমাস্তীর্ণ।