রক্তে রাঙানো ফেব্রুয়ারি

রক্তে রাঙানো ফেব্রুয়ারি

করতোয়া ডেস্ক : ‘আমার ভায়ের রক্তে রাঙানো একুশে ফেব্রুয়ারি আমি কি ভুলিতে পারি’। আজ ৪ ফেব্রুয়ারি। ১৯৫২ ভাষা আন্দোলন বাঙালি জাতির আত্মপরিচয়ের প্রথম ঠিকানা। সেই ঠিকানার পথ বেয়ে ধাপে ধাপে তা এগিয়ে গেছে ঊনসত্তরের গণঅভ্যুথানে, একাত্তরের মহান মুক্তিযুদ্ধ। ইতিহাসের সেই রক্ত মাখা পথে ১৯৭১-এ ৩০ লাখ শহীদের রক্তের বিনিময়ে অর্জন বাংলাদেশ। রক্তের আখরে লেখা আছে ৩ লাখ মা-বোনের সম্ভবহানীর ঘটনা। তারপর দীর্ঘ পথ পরিক্রমায় আন্দোলন আর সংগ্রামে নতুন নতুন বিজয় অর্জন করেছে জাতী। অমর একুশের চেতনা আজ দেশের গন্ডি পেরিয়ে বিশ্বের বিভিন্ন ভাষাভাষী মানুষের নিজস্ব ভাষা ও সংস্কৃতি রক্ষায় অনুপ্রেরণা যোগাচ্ছে। বাঙালির শহীদ দিবস এখন বিশ্বজুড়ে নিজস্ব ভাষা ও স্বকীয়তা রক্ষার চেতনার অবিরাম উৎস। ফেব্রুয়ারি আমাদের গণতান্ত্রিক মূল্যবোধ, বাঙালি জাতীয়তাবাদ, মুক্তিযুদ্ধের চেতনা এবং ধর্মনিরপেক্ষতার প্রতীক। ঢাকায় আজকের দিনে ছাত্র ধর্মঘট, ১১ ফেব্রুয়ারি সারা প্রদেশে আন্দোলনের প্রস্তুতি দিবস এবং ২১ ফেব্রুয়ারি প্রদেশব্যাপী ধর্মঘটের আহ্বান জানানো হয়। ছাত্রসমাজের আন্দোলন দমন করতে সরকার ২০ ফেব্রুয়ারি অপরাহ্নে ঢাকায় ১৪৪ ধারা জারি করে। কিন্ত ছাত্র-জনতা ২১ ফেব্রুয়ারি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ঐতিহাসিক আমতলায় সমাবেশ করে ১৪৪ ধারা ভঙ্গের সিদ্ধান্ত নেয়।