মাদক ব্যবসা নিয়ে কোন্দলে ঈশ্বরদীতে এক ব্যক্তি খুন

মাদক ব্যবসা নিয়ে কোন্দলে ঈশ্বরদীতে এক ব্যক্তি খুন

পাবনার ঈশ্বরদী উপজেলায় মাদক ব্যবসা নিয়ে কোন্দলের জের ধরে আলতাব হোসেন (৪২) নামে এক ব্যক্তিকে খুন করা হয়েছে। একই সময় মতি নামে আরেকজনকে কুপিয়ে জখম করা হয়েছে।


আহত মতিকে উদ্ধার করে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। 

শনিবার (২৫ মে) সকাল ১০টার দিকে পুলিশ ঈশ্বরদী পৌর এলাকার স্কুলপাড়া চারাবটতলা এলাকার একটি পরিত্যক্ত বাড়ি থেকে ওই ব্যক্তির মরদেহ উদ্ধার করে।

এর আগে শুক্রবার (২৪ মে) দিনগত রাতে এ ঘটনা ঘটে। নিহত আলতাব হোসেন চারাবটতলা এলাকার বাসিন্দা।

পূর্ব শত্রুতার জেরে আমার বাবাকে পরিকল্পিতভাবে হত্যা করা হয়েছে দাবি করে নিহতের বড় মেয়ে আশা খাতুন  বলেন, কিছুদিন আগে এক মাদকবিক্রেতাকে পুলিশ গ্রেফতার করে কারাগারে পাঠায়। ওই ব্যক্তি কারাগার থেকে ফিরে এসে আমার বাবাকে প্রাণনাশের হুমকি দিয়েছিলেন। 

স্থানীয় রবিউল ইসলাম রবি নামে এক ব্যক্তি  বলেন, আলতাব হোসেন দীর্ঘদিন ধরে মাদকের ব্যবসা করতেন। কিছুদিন আগে জামিনে বের হয়ে রাজমিস্ত্রীর কাজ করতেন। সকালে তার মরদেহ পাওয়া গেলো।

ঈশ্বরদী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বাহাউদ্দীন ফারুকী  বলেন, নিহতের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। আলতাবের কপালে গুলির ক্ষত চিহ্ন পাওয়া গেছে। তবে ধারণা করা হচ্ছে, মাদক ব্যবসা নিয়ে কোন্দলের জের ধরে তাকে খুন হয়েছে।