বাসার ছাদে ববিতার মধ্যাহ্ন ভোজের আয়োজন

বাসার ছাদে ববিতার মধ্যাহ্ন ভোজের আয়োজন

স্টাফ রিপোর্টার : আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন নায়িকা ববিতা ইংরেজি নতুন বছরে ছোট বোন চম্পাকে সঙ্গে নিয়েই শুরু করেছেন। ৩১ ডিসেম্বর রাত দশটায় তিনি ঘুমিয়েছেন। উঠেছেন গতকাল  খুউব ভোরে। যথারীতি তিনি কানাডায় তার একমাত্র ছেলে অনিকের সঙ্গে কথা বলেছেন। এরপর সকালের নাস্তার পর বাবার ছাদের উপরে মাটির চুলায় নানান রকমের রান্না করেছেন। এ সময় তারসঙ্গে ছিলেন তারই আদরের ছোট বোন চম্পা। ববিতা বলেন,‘ সত্যি বলতে কী এখন আর আমাদের সেই বয়স কী আর আছে। ইংরেজি নতুন বছরে সবাইকে শুভেচ্ছা জানাই যেন সবার বছরটা ভালোভাবে কেটে যায়। গেলো বছরে আমি আমার প্রিয় এবং অনেক শ্রদ্ধার একজন পরিচালক আমজাদ হোসেনকে হারিয়েছি। নতুন বছরে সবাই যেন সুস্থ থাকে, ভালো থাকে এই শুভ কামনা করি। আর এবারের ইংরেজি নতুন বছরের প্রথম দিনটা আমার বাসাতেই কেটেছে।

 ছোটবেলায় মা আমাদেরকে মাটির চুলায় রান্না করে খাওয়াতেন। আমার বাসার ছাদে মাটির চুলার ব্যবস্থা করে আজ রান্না করেছিলাম। আমার সঙ্গে আমার ছোট বোন চম্পাও ছিলো। বড় বোন সূচন্দা বুঝি তার পরিবার নিয়ে একটু ব্যস্ত ছিলেন, তাই আসতে পারেননি। আরো বেশ কয়েকজন উপস্থিত ছিলেন। সব মিলিয়ে আজকের মধ্যাহ্ন ভোজটা বেশ ভালো ছিলো। আমরা বেশ তৃপ্তি নিয়েই খাওয়া দাওয়া করেছি।’ এদিকে ববিতা গেলো বছরই চলচ্চিত্রে বিশেষ অবদানের জন্য ‘আজীবন সম্মাননা’য় ভূষিত হন। তিনি জানান শিগগিরই তিনি আবারো তার ছেলে অনিকের কাছে যাবেন। তবে কবে যাবেন তা এখনো চূড়ান্ত হয়নি। ববিতা সর্বশেষ নারগিস আক্তারের ‘পুত্র এখন পয়সাওয়ালা’ সিনেমায় অভিনয় করেছেন। এরপর তাকে আর নতুন কোন সিনেমায় দেখা যায়নি। আদৌ আর অভিনয় করবেন কী না? এমন প্রশ্নের জবাবে ববিতা বলেন,‘ শিল্পীর কোন অবসর নেই। তাই অভিনয়ে আমার কোন অবসর নেই। নিশ্চয়ই মনেরমতো গল্প এবং চরিত্র পেলে অভিনয় করবো। কেন নয়!