বঙ্গবন্ধু বিশ্ববিদ্যালয়ের আরেক সহকারী প্রক্টরের পদত্যাগ

বঙ্গবন্ধু বিশ্ববিদ্যালয়ের আরেক সহকারী প্রক্টরের পদত্যাগ

গোপালগঞ্জের বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (বশেমুরবিপ্রবি) আরেক সহকারী প্রক্টর ড. মো. নাজমুল হক শাহীন পদত্যাগ করেছেন।

ব্যক্তিগত কারণ দেখিয়ে বুধবার বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার ড. নুরুদ্দীন আহমেদের কাছে পদত্যাগপত্র জমা দিয়েছেন তিনি। পদত্যাগপত্রটি গ্রহণ করা হয়েছে বলে নিশ্চিত করেছেন রেজিস্ট্রার ড. নুরুদ্দীন আহমেদ।


ড. মো. নাজমুল হক শাহীন বিশ্ববিদ্যালয়ের কৃষি বিভাগের সহকারী অধ্যাপক এবং ফুড অ্যান্ড নিউট্রেশন ইন্জিনিয়ারিং বিভাগের সভাপতি হিসেবে কর্মরত রয়েছেন।

এর আগে শনিবার শিক্ষার্থীদের ওপর হামলার প্রতিবাদে পদত্যাগ করেন সহকারী প্রক্টর মো. হুমায়ুন কবির। পদত্যাগপত্রে তিনি লিখেছেন, ‘বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের নৈতিক ও ন্যায্য দাবির প্রতি সমর্থন এবং বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসির অনৈতিক কার্যকলাপের প্রতি প্রতিবাদ জানিয়ে সহকারী প্রক্টর পদ থেকে পদত্যাগ করছি।’

প্রসঙ্গত, গত ১১ সেপ্টেম্বর আইন বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্রী ও ক্যাম্পাস সাংবাদিক ফাতেমা-তুজ-জিনিয়াকে সাময়িকভাবে বহিষ্কারের ঘটনাকে কেন্দ্র করে শিক্ষার্থীদের মধ্যে ক্ষোভ ছড়িয়ে পড়ে। পরে জিনিয়ার বহিষ্কারাদেশ তুলে নেয়াসহ আরও কয়েকটি দাবি কর্তৃপক্ষ মেনে নিলেও গত বৃহস্পতিবার উপাচার্যের পদত্যাগের দাবিতে অন্দোলন শুরু করেন শিক্ষার্থীরা।

শিক্ষার্থীদের আন্দোলনের মুখে গত শনিবার (২১ সেপ্টেম্বর) বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ ঘোষণা করে সকাল ১০টার মধ্যে হল ত্যাগের নির্দেশ দেয়া হয়। নির্দেশ উপেক্ষা করে শিক্ষার্থীরা আন্দোলন চালিয়ে যান। এ অবস্থায় বেলা সাড়ে ১১টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয় সংলগ্ন গোবরা এলাকায় আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের ওপর হামলা করে বহিরাগতরা। এতে ২০ শিক্ষার্থী আহত হন। শিক্ষার্থীদের ওপর হামলার প্রতিবাদে ওইদিন দুপুরে পদত্যাগ করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকারী প্রক্টর হুমায়ুন কবির।