বগুড়া-৬ উপ-নির্বাচনে প্রার্থী হচ্ছেন না খালেদা জিয়া

বগুড়া-৬ উপ-নির্বাচনে প্রার্থী হচ্ছেন না খালেদা জিয়া

বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের নির্দেশে বগুড়া-৬ উপ-নির্বাচনে দলের চারজনকে প্রাথমিকভাবে মনোনয়ন জমা দিতে বলা হয়েছে।

বুধবার (২২ মে) রাতে রাজধানীর নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান বিএনপির নেতাদের সঙ্গে স্কাইপিতে বৈঠক করে এ সিদ্ধান্ত দেন।

এর আগে মঙ্গলবার (২১ মে) বৈঠক করে বুধবার খালেদা জিয়ার পক্ষে মনোনয়ন ফরম ক্রয় করলেও আবার সিদ্ধান্ত পরিবর্তন করা হয়।           

দলের মনোনীত চারজন হলেন- বগুড়া জেলা বিএনপির আহ্বায়ক গোলাম মোহাম্মাদ সিরাজ, বিএনপি চেয়ারপরসনের উপদেষ্টা ও বগুড়া পৌরসভার মেয়র অ্যাডভোকেট একেএম মাহবুবর রহমান, সাবেক জেলা বিএনপির সভাপতি রেজাউল করিম বাদশা ও সাবেক সাধারণ সম্পাদক জয়নাল আবেদীন চাঁন।

জানা গেছে, বগুড়া-৬ আসনের উপ-নির্বাচনে দলীয় চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে প্রার্থী করার বিষয়ে মত দেন বগুড়ার নেতারা। এনিয়ে দুই দফা বৈঠকের পর চূড়ান্তভাবে সিদ্ধান্ত হয় ওই চার জনের বিষয়ে। এদিকে খালেদা জিয়াকে প্রার্থী করতে প্রথম দিনের বৈঠকে সম্মতি দিলেও বুধবারের বৈঠকে তা নাকচ করে দেন তারেক রহমান।
 
বিএনপি চেয়ারপারসনের প্রেস উইংয়ের সদস্য শায়রুল কবির খান বাংলানিউজকে  জানান, খালেদা জিয়া প্রার্থী হচ্ছেন না। চারজনকে প্রাথমিক মনোনয়ন দেওয়া হয়েছে। নির্বাচন কমিশনে মনোনয়ন জমা দেওয়ার পর যাচাই-বাছাইয়ের করে দল থেকে একজনকে চূড়ান্ত করা হবে।

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে এ আসন থেকে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর জয় লাভ করলেও সংসদ সদস্য হিসেবে শপথ গ্রহণ না করায় আসনটি শূন্য ঘোষণা করা হয়। ফলে উপ-নির্বাচনের জন্য তফসিল ঘোষণা করে নির্বাচন কমিশন (ইসি)।

তফসিল অনুযায়ী, বগুড়া-৬ আসনের ভোটের জন্য রিটার্নিং কর্মকর্তার কাছে মনোনয়ন দাখিলের শেষ সময় ২৩ মে। মনোনয়নপত্র বাছাই হবে ২৭ মে। প্রার্থিতা প্রত্যাহারের শেষ সময় আগামী ৩ জুন। ভোট গ্রহণ হবে ২৪ জুন।