প্রধানমন্ত্রীর সৌদি সফর

প্রধানমন্ত্রীর সৌদি সফর

সৌদি বাদশাহ সালমানের আমন্ত্রণে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দুই পবিত্র নগরী মক্কা-মদিনার-দেশ সফর করছেন এবং ইতিমধ্যে বাদশাহ সালমান এবং যুবরাজ মোহাম্মদ বিন সালমানের সঙ্গে বৈঠক করে দুই দেশের বহুমুখী সম্পর্ক আরও জোরদারের ঐকমত্যে পৌঁছেছেন। বাদশাহ সালমান এবং যুবরাজ মোহাম্মদ বিন সালমানের সঙ্গে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার   বৈঠক শেষে ব্রিফিং কালে পররাষ্ট্র সচিব মোঃ শহিদুল হক বলেন, বাদশাহ এবং প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠকে মূলত দুটি বিষয়ের ওপর গুরুত্ব দিয়ে আলোচনা করা হয়। এর একটি বাণিজ্য ও বিনিয়োগ এবং অন্যটি প্রতিরক্ষা সংক্রান্ত। তিনি বলেন, আমরা আশা করছি বিভিন্ন ক্ষেত্রে সহযোগিতা বৃদ্ধিতে সৌদি আরবের একটি উচ্চ পর্যায়ের প্রতিনিধি দল শিগগিরই বাংলাদেশ সফর করবেন এবং দেশটি বাংলাদেশে বড় ধরনের বিনিয়োগ করবে।

সফরকালে প্রধানমন্ত্রী সৌদি ব্যবসায়ীদের সঙ্গে বৈঠক করেছেন এবং বাংলাদেশের পুঁজি বাজার, বিদ্যুৎ, জ্বালানি, টেলি কমিউনিকেশন এবং তথ্য প্রযুক্তি, পেট্রোকেমিক্যাল, ওষুধ শিল্প, জাহাজ নির্মাণ ও কৃষি প্রক্রিয়াজাতকরণ খাতে বিনিয়োগের আমন্ত্রণ জানান। প্রবাসী বাংলাদেশিদের সঙ্গে বৈঠকে প্রধানমন্ত্রী যথার্থই বলেছেন যে, বিভিন্ন খাতে আমাদের দক্ষতা বাড়াতেই হবে। বুধবার সৌদি উপ-প্রধানমন্ত্রী ও স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী যুবরাজ মুহাম্মদ বিন সালমান বিন আব্দুল আজিজ বাংলাদেশের ব্যাপক উন্নয়নের উচ্ছ্বসিত প্রশংসা করেছেন। অর্থনৈতিক, সাংস্কৃতিক, প্রতিরক্ষা ও নিরাপত্তা খাতে দুই দেশ সহযোগিতার সুযোগ কাজে লাগানোর প্রত্যাশা ব্যক্ত করেছেন যা এ সফরের একটি ইতিবাচক দিক। আমরা দেখেছি, ফিলিস্তিন সহ মুসলিম বিশ্বের জন্য গুরুত্বপূর্ণ আন্তর্জাতিক ইস্যুতে বাংলাদেশ ও সৌদি আরব অভিন্ন অবস্থান গ্রহণ করে এসেছে। প্রধানমন্ত্রীর এই সফর দুই ভ্রাতৃপ্রতিম দেশের মধ্যে বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ককে আরো জোরদার করবে এবং অর্থনৈতিক সহযোগিতার নতুন দিগন্ত উন্মোচিত করবে।