প্রথম বৈঠকে বসেছে কোটা সংস্কার কমিটি

প্রথম বৈঠকে বসেছে কোটা সংস্কার কমিটি

গঠনের পর প্রথম বৈঠকে বসেছে কোটা সংস্কার কমিটি। মন্ত্রিপরিষদ সচিবের দফতরে রোববার (৮ জুলাই) সকাল ১১টার দিকে এ বৈঠক শুরু হয়। মন্ত্রিপরিষদ সচিব এর সভাপতিত্ব করছেন।

মন্ত্রিপরিষদ সচিবের একান্ত সচিব (উপসচিব) এইচ এম নূরুল ইসলাম বৈঠক শুরুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

২ জুলাই প্রজাতন্ত্রের চাকরিতে বিদ্যমান কোটা পদ্ধতি পর্যালোচনা/বাতিল অথবা সংস্কারের লক্ষ্যে সাত সদস্য বিশিষ্ট উচ্চ পর্যায়ের কমিটি গঠন করে সরকার। ১৫ কার্যদিবসের মধ্যে সরকারের কাছে সুপারিশসহ প্রতিবেদন জমা দেবে এ কমিটি।

রোববার (২ জুলাই) রাষ্ট্রপতি আব্দুল হামিদের নির্দেশক্রমে জনপ্রশাসন বিভাগের সচিব ফয়েজ আহমেদ স্বাক্ষরিত এক প্রজ্ঞাপনের মাধ্যমে এ কমিটি গঠন করা হয়।

মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলমকে কমিটির প্রধান করা হয়। এছাড়া জনপ্রশাসন বিভাগের সচিব ফয়েজ আহমেদ, অর্থ মন্ত্রণালয়ের সচিব মোহাম্মদ মুসলিম চৌধুরী, পাবলিক সার্ভিস কমিশনের সচিব মনজুরুর রহমান (অতিরিক্ত সচিব), মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব অপরূপ চৌধুরী, সরকারি কর্মকমিশনের সচিব আক্তারি জাহান,  আইন মন্ত্রণালয়ের লেজিসলেটিভ ও সংসদ বিষয়ক বিভাগের সিনিয়র সচিব মোহাম্মদ শহিদুল হক, প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত সচিব সাজ্জাদুল হাসানকে নিয়ে এ কমিটি গঠন হয়।

জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় সূত্র বলছে, গঠনের দিন থেকে ১৫ কর্ম দিবসের মধ্যে কমিটিকে প্রজাতন্ত্রের বিদ্যমান কোটা পর্যালোচনা বা বাতিল অথবা সংস্কারের বিষয়ে সুপারিশসহ সরকারের কাছে প্রতিবেদন জমা দেবে এ কমিটি।

জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব (বিধি) সালমা মাহমুদ এ কমিটির সাচিবিক দায়িত্ব পালনের জন্য নিয়োগ দেওয়া হয়েছে। এছাড়া কমিটি প্রয়োজনে যে কেউকে কো-আপ্ট করতে পারবে বলে প্রজ্ঞাপনে জানানো হয়েছে।