প্রজাপতি ধরতে গিয়ে আরেক ‘প্রজাপতি’র মৃত্যু

প্রজাপতি ধরতে গিয়ে আরেক ‘প্রজাপতি’র মৃত্যু

সাত বছর বয়সী শিশু সুরভী আক্তারের দুরন্তপনা ঠিক প্রজাপতির মতোই। কখনও এখানে তো কিছুক্ষণের মধ্যে আবার আরেকখানে। সারাদিন বান্ধবীকে নিয়ে ছুটে চলার মাঝেই যেন তার সব আনন্দ। এ বয়সে সবাই হয়তো প্রজাপতির মতো উড়ে। টুকটুকে চেহারার দুরন্ত সুরভী বাবা-মায়ের কাছেও প্রজাপতির মতোই।

কিন্তু আর বান্ধবীদের নিয়ে ছুটবে না সুরভী। বাবা-মাও আর বকা দেবে না তাকে। সোমবার সেই প্রজাপতি মেয়েটি বিদ্যুৎস্পৃষ্টে মারা গেছে।


সোমবার বেলা ১১টার দিকে গাজীপুরের শ্রীপুর উপজেলার দেওয়ানের চালা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পাশে এ ঘটনা ঘটে। সে ময়মনসিংহের গফরগাঁও উপজেলার চরমোছলদী (জয়ারচর) গ্রামের কামরুল ইসলামের মেয়ে। সুরভী বাবা-মায়ের সঙ্গে শ্রীপুর উপজেলার টেপিরবাড়ি পশ্চিমপাড়া এলাকার আলমগীরের বাড়ি ভাড়া থাকতো। সে স্থানীয় একটি কিন্ডার গার্টেনের ২য় শ্রেণির শিক্ষার্থী।

নিহতের স্বজনরা জানান, সুরভীর বাবা রিকশাচালক; মা স্থানীয় একটি কারখানার শ্রমিক। প্রতিদিনের মতো সোমবার সকালে মা ও বাবা কাজে চলে যাওয়ায় সুরভী বিদ্যালয়ে না গিয়ে তার সমবয়সী কয়েক শিশুর সঙ্গে খেলতে বের হয়। এসময় স্থানীয় তাসলিমার বাড়ি বিদ্যুতের পার্শ্ব সংযোগের নিচু হয়ে থাকা বিদ্যুতের তারে বসে থাকা প্রজাপতি ধরতে গিয়ে বিদ্যুৎস্পৃষ্টে গুরুতর আহত হয় সুরভী। পরে তার বান্ধবীদের চিৎকারে স্থানীয়রা এসে তাকে উদ্ধার করে শ্রীপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যাওয়ার পর চিকিৎসকরা তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

এ ঘটনায় শ্রীপুর থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা লিয়াকত আলী জানান, ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। তদন্তপূর্বক আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।