নীলফামারীতে গ্রামীন জনপদের ঘোড়দৌঁড় প্রতিযোগিতা

নীলফামারীতে গ্রামীন জনপদের ঘোড়দৌঁড় প্রতিযোগিতা

নীলফামারী প্রতিনিধি: নীলফামারীর সোনারায় ইউনিয়নের শাটিপাড়ায়  গত বৃহস্পতিবার বিকালে ঐতিহ্যবাহী ঘোড়া দৌড় অনুষ্ঠিত হয়েছে। ঘোড়দৌঁড় প্রতিযোগীতার আয়োজন করেছে সোনারায় ইউনিয়নের  স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন আলোকিত জিগাতলা মোড়। সওয়ারীদের পিঠে নিয়ে দৌঁড় প্রতিযোগীতার সারিতে দাঁড়ানো ৪০টি ঘোড়া। সওয়ারীরা নিজ নিজ ঘোড়া নিয়ে প্রস্তুত, বাঁশি বাজার সাথে শুরু দৌঁড়। আর সে দৌঁড়ে ৩৯ ঘোড়াকে ছাড়িয়ে এগিয়ে গেল রংপুরের তারাগঞ্জের কিশোর সওয়ারী মহসীন আলী।

 নীলফামারী ছাড়াও রংপুর, দিনাজপুর, ঠাকুরগাঁও ও পঞ্চগড়ের ৪০ সওয়ারী নিজ নিজ ঘোড়া নিয়ে অংশ নেয় প্রতিযোগিতায়। গ্রামীণ ঐতিহ্যবাহি ঘোড়া দৌঁড় প্রতিযোগীতা উপভোগ করতে প্রতিযোগীতার মাঠে জমায়েত হয়েছিলেন প্রায় ৪০ হাজার দর্শক। তারা ওই খেলা উপভোগ করলেন আর প্রশংসা করলেন ক্ষুদে সওয়ারী মহসীন আলীর। এই প্রতিযোগীতা প্রথম হওয়া সওয়ারী মহসীন আলীর হাতে প্রতিযোগীতার প্রথম পুরস্কার ২১ ইঞ্চি রঙ্গীন টেলিভিশন তুলে দেন অনুষ্ঠানের অতিথি বৃন্দ।

এর আগে সোনারায় ইউনিয়ন যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক মনিরুজ্জামান মানিক এবং স্থানীয় সমাজসেক ও ব্যবসায়ী আব্দুর রাজ্জাকের পৃষ্ঠপোষকতায় প্রতিযোগীতার উদ্বোধন করেন সোনারায় সংগলশী ডিগ্রি কলেজের অধ্যক্ষ আব্দুল মজিদ। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন সদর উপজেলা উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আবুজার রহমান। প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিরণী অনুষ্ঠানে সোনারায় ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি আব্দুল মান্নান শাহের সভাপতিত্বে অন্যান্যের মধ্যে বক্তৃতা দেন জেলা পরিষদের সদস্য ইসরাত জাহান পল্লবী, সদর উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান শান্তনা চক্রবর্তী, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওয়াদুদ রহমান, সোনারায় ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান অশি^নী কুমার বিশ^াস।