নাটোরে সাবেক উপমন্ত্রী দুলুসহ ৬ জনের মনোনয়নপত্র বাতিল, বৈধ ২৯ জন

নাটোরে সাবেক উপমন্ত্রী দুলুসহ ৬ জনের মনোনয়নপত্র বাতিল, বৈধ ২৯ জন

নাটোর প্রতিনিধি : একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নাটোর জেলায় সদর আসনের বিএনপি প্রার্থী এম রুহুল কুদ্দুস তালুকদার দুলুসহ ৬ জনের মনোনয়নপত্র বাতিল করা হয়েছে। গতকাল রোববার বাছাইয়ে জেলা রিটার্নিং অফিসার ও জেলা প্রশাসক মোহম্মদ শাহরিয়াজ ৩টি আসনের ৬ জন প্রার্থীর মনোনয়ন পত্র বাতিল করেন। এতে নাটোরের চারটি আসনে বর্তমানে মোট বৈধ প্রার্থীর সংখ্যা ২৯ জন। আর বাছাইকালে দু’টি ফৌজদারী মামলায় দন্ডিত হওয়ার অভিযোগে বিএনপি প্রার্থী এম রুহুল কুদ্দুস তালুকদার দুলুর মনোনয়নপত্র বাতিল করা হয়। এছাড়া নাটোর-৪ (গুরুদাসপুর-বড়াইগ্রাম) আসনে ঋণ খেলাপির আভিযোগী জাতীয় পাটির প্রার্থী আলাউদ্দিন মৃধা, একই আসনে স্বাক্ষর জালিয়াতির জাসদ (ইনু) প্রার্থী ডিএম রনি পারভেজ আলমগীর, মুসলিমলীগ প্রার্থী শান্তি রিবেরু এবং স্বাক্ষর জালিয়াতির অভিযোগে স্বতন্ত্র প্রার্থী জামায়াত নেতা অধ্যক্ষ দেলোয়ার হোসেন খানের মনোনয়ন বাতিল করা হয়েছে।

 এছাড়া স্বাক্ষর না থাকায় নাটোর-১ (লালপুর-বাগতিপাড়া) আসনে সাম্যবাদী দলের প্রার্থী বিরেন সাহার মনোনয়ন পত্র বাতিল করা হয়েছে।এদিকে নাটোর-১ (লালপুর-বাগাতিপাড়া) আসনে বৈধ প্রার্থীরা হলেন জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক শহিদুল ইসলাম বকুল, আওয়ামী লীগের অপর প্রার্থী কর্নেল (অবঃ) রমজান আলী, বিএনপির সাবেক প্রতিমন্ত্রী মরহুম ফজলুর রহমান পটলের স্ত্রী অধ্যক্ষ কামরুন্নাহার শিরিন, বিএনপির অপর প্রার্থী তাইফুল ইসলাম টিপু, কৃষক শ্রমিক জনতা লীগ প্রার্থী মনজুরুল ইসলাম বিমল, জাতীয় পাটির প্রার্থী সাবেক সংসদ সদস্য এম.এ তালহা, ওয়ার্কার্স পার্টির প্রার্থী অধ্যক্ষ ইব্রাহিম খলিল, বাংলাদেশের বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টি প্রার্থী আনছার আলী দুলাল, জাসদ (ইনু) প্রার্থী ইঞ্জিনিয়ার মোয়াজ্জেম হোসেন ও ইসলামী শাসনতন্ত্র আন্দোলন বাংলাদেশের আলহাজ মুহাম্মাদ খালেকুজ্জামান। নাটোর-২ (সদর ও নলডাঙ্গা) আসনে বৈধ প্রার্থী হলেন, আওয়ামী লীগের প্রার্থী শফিকুল ইসলাম শিমুল এমপি, বিএনপির প্রার্থী রুহুল কুদ্দুস তালুকদার দুলুর স্ত্রী সাবিনা ইয়াসমিন ছবি, জাতীয় পার্টির সাবেক এমপি মুজিবুর রহমান সেন্টু এবং ইসলামী শাসনতন্ত্র আন্দোলন বাংলাদেশের আজিজার খান চৌধুরী আমেল। নাটোর-৩ (সিংড়া) আসনে আওয়ামী লীগ প্রার্থী ও আইসিটি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ সহ প্রতিদ্বন্দ্বী ৭ প্রার্থীর মনোনয়ন পত্র বৈধ ঘোষণা করা হয়েছে। এই আসনে বৈধ অপর প্রার্থীরা হলেন বিএনপির আনোয়ারুল ইসলাম আনু ও দাউদার মাহমুদ, ওয়ার্কাস পাটির মিজানুর রহমান, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ শাহ মোস্তফা ওয়ালী উল্লাহ, বিকল্পধারা মুঞ্জুরুল আলম হাসু ও জাতীয় পাটির আনিছুর রহমান।

নাটোর-৪ (বড়াইগ্রাম-গুরুদাসপুর) আসনে বাছাই শেষে যারা বৈধ হয়েছেন তারা হলেন, আওয়ামী লীগের অধ্যাপক আব্দুল কুদ্দুস এমপি, বিএনপির আব্দুল আজিজ, সাবেক সাংসদ মোজাম্মেল হক ও এডভোকেট জন গমেজ, ন্যাপের হারুন-অর-রশিদ, কৃষক শ্রমিক জনতালীগের মুন্সি শহিদুল ইসলাম, ইসলামী আন্দোলনের বদরুল আমিন এবং স্বতন্ত্র প্রার্থী জামায়াতের আব্দুল হাকিম। বাছাইয়ে তিনটি আসনের ৬ জন প্রার্থীর মনোনয়ন পত্র বাতিল হওয়ায় নাটোরের চারটি আসনে বর্তমানে মোট বৈধ প্রার্থীর সংখ্যা ২৯ জন। বাছাইকালে  জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মো. আব্দুর রহিম, সদর উপজেলা নির্বাচন অফিসার সাইফুল ইসলামসহ প্রার্থী ও তাদের সমর্থকরা এ সময় উপস্থিত ছিলেন।