নাগেশ্বরীতে নদী থেকে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন

নাগেশ্বরীতে নদী থেকে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন

নাগেশ্বরী (কুড়িগ্রাম) প্রতিনিধি : নাগেশ্বরীতে শংকোষ নদী থেকে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন করে আসছে স্থানীয় কয়েকজন বালু ব্যবসায়ী। হুমকির মুখে পড়েছে শংকোষ ব্রিজসহ আশপাশের বেশ কিছু বসতবাড়ি। সরেজমিন দেখা গেছে, উপজেলার কচাকাটা থানার শংকোষ নদীতে দীর্ঘদিন ধরে ব্রিজের মাত্র ৭০ গজ দূরত্ব থেকে এক কিলোমিটারের মধ্যে ৯টি ড্রেজার মেশিন বসিয়ে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন করছে স্থানীয় ইউপি সদস্য গাজীউর রহমান, আয়নাল হোসেন, কাছুয়া, বাচ্চু মিয়া, আতাউর রহমানসহ বেশ কয়েকজন বালু ব্যবসায়ী। গত কয়েক মাস ধরে এখানে তারা ৩-৪টি ড্রেজার মেশিনে নিয়মিত বিরতিতে বালু উত্তোলন করে আসছিলেন বলে জানা যায়। আষাঢ়ের কয়েকদিনের বৃষ্টিতে নদীতে পানি বৃদ্ধি পেলে প্রতিযোগিতা চলতে থাকে বালু উত্তোলনের।

 বর্তমানে ৯টি ড্রেজার মেশিন দিয়ে সারাদিন চলছে বালু উত্তোলন। এতে দেবে যাচ্ছে নদী তীরবর্তী জমি, দেখা দিয়েছে ভাঙন, বড় বড় গর্ত হয়ে হুমকির মুখে পড়েছে শংকোষ ব্রিজ ও আশেপাশের বসতবাড়িসমূহ। স্থানীয় আজাদ আলী (২৮), মফিজুল ইসলাম (৩০), ব্রিজের পাশের দোকানদার রেজাউল ইসলাম (৩৫), আবু বকর সিদ্দিক (৩৭)সহ অনেকেই বলেন এভাবে বালু উত্তোলন করায় ব্রিজটি যেমন হুমকির মুখে পড়েছে, তেমনি নদী তীরবর্তী আমাদের জমিগুলোও দেবে যাচ্ছে। এ বিষয়ে বিভিন্ন জায়গায় জানানো হলে কয়েকদিন বন্ধ থাকার পর আবারও শুরু হয় বালু উত্তোলন। বালু ব্যবসায়ী ইউপি সদস্য গাজীউর রহমান জানান, অনেকেই এখান থেকে এভাবে বালু তোলেন তাই আমিও তুলছি। বালু উঠালে ক্ষতি তো একটু হবেই। এ বিষয়ে জানতে কচাকাটা ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুল আউয়ালের মুঠোফোন যোগাযোগ করা হলে ফোন বন্ধ পাওয়া যায়। ভারপ্রাপ্ত উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আল ইমরান বলেন অভিযোগ পেলে ব্যবস্থা নেয়া হবে।