নতুন কোচ বাছাইয়ে কোহলির কথা শুনবে না ভারত

নতুন কোচ বাছাইয়ে কোহলির কথা শুনবে না ভারত

ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড তথা দলে বিরাট কোহলির কর্তৃত্বের কথা সবারই জানা। বিশেষ করে সবশেষ কোচ রবি শাস্ত্রির নিয়োগ প্রক্রিয়া এবং অনিল কুম্বলেকে দায়িত্ব থেকে সরানোর ঘটনায় সরাসরি ভূমিকা ছিলো কোহলির। সে ঘটনায় বেশ আলোচিত-সমালোচিত ছিলেন ভারতীয় অধিনায়ক।

তাই এবার আর নতুন কোচ নিয়োগের সময় কোহলির কোনো কথা শুনবে না বিসিসিআই। বোর্ডের এক শীর্ষ কর্মকর্তা সরাসরি জানিয়ে দিয়েছেন নতুন কোচ নিয়োগের যে প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে, তাতে কোহলির কোনো ভূমিকা থাকবে না।


না প্রকাশে অনিচ্ছুক সে কর্মকর্তা ভারতীয় সংবাদমাধ্যম ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসে বলেন, ‘কোচ নিয়োগের ব্যাপারে গতবার কোহলি তার নিজের অথবা দলের অসুবিধার কথা বলেছিল। এবার কে কোচ হবে, না হবে- সে ব্যাপারে কোহলির কোনো মন্তব্যই শোনা হবে না। কপিল দেব এবার কোচ নির্ধারণ করবেন যিনি কোহলির কোনো মন্তব্য শুনবেন না।’

আগামী সেপ্টেম্বরের ১৫ তারিখ থেকে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ঘরের মাঠের সিরিজ শুরুর আগেই কোচ বাছাই করে ফেলতে চায় ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড।

এদিকে বিশ্বকাপের পরপরই কোচ রবি শাস্ত্রির সঙ্গে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের চুক্তির মেয়াদ শেষ হয়ে যায়। শুধু তাই নয়, রবি শাস্ত্রির সঙ্গে তার সহযোগি অন্যদেরও মেয়াদ শেষ হয়ে যায়। এছাড়া ফিজিও প্যাট্টিক ফারহার্ট এবং কন্ডিশনিং কোচ শঙ্কর বসু পদত্যাত করেন।

ফলে ভারতীয় বোর্ড বিসিসিআই নতুন কোচ চেয়ে ইতিমধ্যেই বিজ্ঞাপন দিয়েছে। আগামী ৩০ জুলাই পর্যন্ত আবেদন করার সময়। এরপরই কোচ বাছাইয়ে বসবে তিন সদস্যের নতুন কমিটি।

কপিল দেবের নেতৃত্বে বাকি দু’জন হচ্ছেন ভারতের সাবেক অধিনায়ক এবং ওপেনার আংশুমান গায়কোয়াড়, ভারতীয় নারী ক্রিকেট দলের সাবেক অধিনায়ক শান্তা রঙ্গশামি। কপিল দেবের নেতৃত্বে এই কমিটি শুধু কোচ নিয়োগই নয়, আগামী দিনের জন্য ভারতীয় জাতীয় নির্বাচক কমিটিও ঠিক করবেন।

বিশ্বকাপ শেষেই এমএসকে প্রাসাদ, গগন গোদা, যতিন পরানজপি, সারান্দিপ সিং এবং দেবাং গান্ধীর মেয়াদ শেষ হয়ে যায়। কপিল দেবরা নতুন নির্বাচক কমিটির নামও সুপারিশ করবেন ভারতীয় সুপ্রিম কোর্ট মনোনীত বিসিসিআইয়ের কমিটি অব এডমিনেস্ট্রেটিভ (সিওএ) প্রধান নির্বাহী রাহুল জহুরির কাছে।

ভারতীয় বোর্ডের ক্রিকেট অ্যাডভাইজরি কমিটিতে ছিলেন তিন গ্রেট ক্রিকেটার শচিন টেন্ডুলকার, সৌরভ গাঙ্গুলি এবং ভিভিএস লক্ষ্মণ। তবে আইপিএল চলাকালে তারা বিভিন্ন ফ্রাঞ্চাইজির সঙ্গে যুক্ত থাকার কারণে, কনফ্লিক্ট অব ইন্টারেস্ট বিষয়ে তাদের ওপর আঙ্গুল তোলা হয়। যে কারণে, শেষ পর্যন্ত তিনজনই অ্যাডভাইজরি কমিটি থেকে পদত্যাগ করেন। এবং এ কারণেই কপিল দেবদের নিয়োগ দিয়েছে বিসিসিআই।

এই কমিটি আগ্রহী প্রার্থীদের ইন্টারভিউ নিয়ে তাদের মনোনীতদের নাম প্রস্তাব করবে বিসিবিআইএর কমিটি অব অ্যাডমিনেস্ট্রেটিভের কাছে। তারাই পরবর্তী কোচ এবং তার সহযোগীদের নাম প্রকাশ করবেন। রবি শাস্ত্রি, সঞ্জয় বাঙ্গার (ব্যাটিং কোচ) এবং ভারত অরুন (বোলিং কোচ) আবেদন না করলেও তারা সাক্ষাৎকারের জন্য মনোনীত হবেন।