তারকাদের উপস্থিতিতে ইলিয়াস কাঞ্চনের ৪০ বছর পূর্তি অনুষ্ঠান সম্পন্ন

তারকাদের উপস্থিতিতে ইলিয়াস কাঞ্চনের ৪০ বছর পূর্তি অনুষ্ঠান সম্পন্ন

অভি মঈনুদ্দীন : চিত্রনায়ক ইলিয়াস কাঞ্চন তার অভিনয় জীবনের চল্লিশ বছর পূর্ণ করেছেন গেলো ৩১ ডিসেম্বর। অভিনয় জীবনের দীর্ঘদিনের পথচলায় চল্লিশ বছর পূর্ণ করায় ইংরেজি নতুন বছরের প্রথম দিনে রাজধানীর শাহবাগের ঢাকা ক্লাবে ইলিয়াস কাঞ্চন তার পথচলা’র সহকর্মীদের নিয়ে এক গেটটুগেদারের আয়োজন করেছিলেন। প্রযোজক, পরিচালক, সাংবাদিক, শিল্পী’সহ আরো অনেকেই তার এই নিমন্ত্রণে উপস্থিত হয়ে তাকে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন, দোয়া করেছেন। উপস্থিত হয়েছিলেন তথ্যমন্ত্রী আহসানুল হক ইনু। ইনু বলেন,‘ বাংলাদেশের চলচ্চিত্রে জুটি হিসেবে প্রথম সাফল্য পায় রহমান-শবনম, এরপর জুুটি হিসেবে সাফল্য পায় রাজ্জাক কবরী। তারপরও এককভাবে যে নায়ক নিজের অভিনয় দিয়ে, মেধা দিয়ে সাফল্য পান তিনি ইলিয়াস কাঞ্চন। দীর্ঘদিন তিনি তার অভিনয় দিয়ে দর্শককে হলে টেনে নিয়ে গেছেন। আমার মনে হয় এই সময়ের শিল্পীদের তার অভিনয় জীবন, তার আদর্শ অনুসরণ করা উচিত।’ অনুষ্ঠানে উপস্থিত হয়েছিলেন ইলিয়াস কাঞ্চনের বহু চলচ্চিত্রের নায়িকা চম্পা। চম্পা বলেন,‘ যদিও অনেক দেরীতে আমি অনুষ্ঠানে উপস্থিত হয়েছি। কিন্তু অনুষ্ঠানের শুরুতে আমার উপস্থিত থাকাটা উচিত ছিলো।

 তারপরও আমি দুঃখিত। কাঞ্চন ভাই সর্বোপরি একজন ভালো মনের মানুষ। একজন বন্ধু, একজন অভিভাবক। তারসঙ্গে অনেক স্মৃতি জড়িয়ে আছে। আমাদের জুটির সবচেয়ে হিট সিনেমা ভোজাচোখ। নিরাপদ সড়ক চাই নামে যে আন্দোলন তিনি একাই করে এসেছেন তা আমাদের সবার জন্য দৃষ্টান্ত হয়ে থাকবে।’ চিত্রনায়ক ইলিয়াস কাঞ্চন বলেন,‘ আপনারা যারা আমার আহ্বানে সাড়া দিয়ে আজ এখানে উপস্থিত হয়েছেন তাদের প্রত্যেকের প্রতি আমি ভীষণ কৃতজ্ঞ। আমার পথচলার সঙ্গী হিসেবে যারা ছিলেন অনেকেই আজ এখানে নেই। তাদের মন থেকে ভীষণ মিস করছি। সেইসাথে যারা এখানে উপস্থিত হয়েছেন তারা আমাকে কতোটা ভালোবাসেন, সেটা আমি উপলদ্ধি করতে পারি। আপনাদের কারণেই আমার আজকের এই অবস্থান। আমার বিশ্বাস আগামী দিনেও আপনারা আপনাদের দোয়া, ভালোবাসা নিয়ে আমার পাশে থাকবেন।’

 ইলিয়াস কাঞ্চনের চল্লিশ বছর পুর্তি অনুষ্ঠানে অনেকের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন আব্দুল লতিফ বাচ্চু, আজিজুর রহমান, শফি বিক্রমপুরী, হাফিজ উদ্দিন, আবু মুসা দেবু, চিত্রনায়ক ফারুক, চম্পা, আহমেদ শরীফ, ফাহমিদা নবী, আমিন খান, শাবনাজ, শাবনূর, পপি, পূর্ণিমা, ফেরদৌস, মিশা সওদাগর, জায়েদ খান, অমিত হাসানের স্ত্রী লাবনী, মুশফিকুর রহমান গুলজার, নরেশ ভূঁইয়া, বজলুর রাশেদ চৌধুরী, নুর মোহাম্মদ মনি, রেজা লতিফ, সোহানুর রহমান সোহান এবং ইলিয়াস কাঞ্চনের স্ত্রী ফরিদা ইয়াসমিন’সহ আরো অনেকে। অনুষ্ঠানটির উপস্থাপনা করেন কাহিনীকার মুজতবা সউদ। উল্লেখ্য ১৯৭৭ সালের ৩১ ডিসেম্বর মুক্তি পায় ইলিয়াস কাঞ্চন অভিনীত প্রথম চলচ্চিত্র সুভাষ দত্ত পরিচালিত ‘বসুন্ধরা’ চলচ্চিত্রটি।
ছবি ঃ আলিফ হোসেন রিফাত  ।