ট্রলারের ছাদ ভেঙ্গে শীতলক্ষ্যায় নিখোঁজ চারজনের লাশ উদ্ধার

ট্রলারের ছাদ ভেঙ্গে শীতলক্ষ্যায় নিখোঁজ চারজনের লাশ উদ্ধার

নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি : নারায়ণগঞ্জে শীতলক্ষ্যা নদীতে ট্রলারের ছাদ থেকে পড়ে নিখোঁজ চারজনের লাশ উদ্ধার করেছে ফায়ার সার্ভিস। নারায়ণগঞ্জ ফায়ার সার্ভিসের উপ-সহকারী পরিচালক মো. মামুনুর রশিদ জানান, মঙ্গলবার সকালে শীতলক্ষ্যা নদীর টানবাজার লবনঘাট ও এর আশপাশের এলাকা থেকে লাশগুলো উদ্ধার করা হয়। মৃতরা হলেন- বন্দর উপজেলার মদনগঞ্জ ইসলামপুরের রমিজ উদ্দিনের ছেলে ইমন (১৮), একই এলাকার কানাই মিয়ার ছেলে দ্বীন ইসলাম (৩৫), আনোয়ার হোসেন সালান (৩৫) ও জনি (২৩)। রোববার রাতে নারায়ণগঞ্জের শীতলক্ষ্যা নদীর সেন্ট্রাল খেয়াঘাট এলাকা থেকে একটি ট্রলার ছাদে প্রায় ৬০ থেকে ৭০ জন যাত্রী নিয়ে মদনগঞ্জ ঘাটে রওনা দেয়। অতিরিক্ত যাত্রীর চাপে ট্রলারটি ছাড়ার সঙ্গে সঙ্গে কাত হয়ে যায়।

 এ সময় ট্রলারের ছাদ ভেঙ্গে কয়েকজন যাত্রী নদীতে পড়ে যায় বলে নারায়ণগঞ্জ সদর নৌ থানা পুলিশের ওসি নেওয়াজ উদ্দিন আহমেদ জানান। তিনি বলেন, খবর পেয়ে রাতেই পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসকর্মীরা ঘটনাস্থলে এসে উদ্ধার তৎপরতা শুরু করেন; কিন্তু রাতে কেউ নিখোঁজ হয়েছে এমন দাবি না করায় উদ্ধার অভিযান স্থগিত করা হয়। সোমবার সকালে তিন যাত্রী নিখোঁজ রয়েছে স্বজনরা দাবি করলে পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিস আবার উদ্ধার অভিযান শুরু করে বলে ওসি জানান। ফায়ার সার্ভিস কর্মকর্তা রশীদ বলেন, উদ্ধার অভিযানের মধ্যেই শীতলক্ষ্যা নদীতে চারজনের লাশ ভেসে ওঠে। পরে তাদের ডুবুরি দল তা উদ্ধার করে। আপাতত আর কেউ নিখোঁজ থাকার খবর না থাকলেও বিকাল পর্যন্ত শীতলক্ষ্যায় তল্লাশি চালানো হবে বলে জানান রশীদ। জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. শরফুদ্দীন বলেন, লাশ উদ্ধার করে আপাতত নদীর পাড়ে রাখা হয়েছে। আইনী প্রক্রিয়া শেষে স্বজনদের কাছে হস্তান্তর করা হবে।