জাপানে ৭ গোষ্ঠী নেতার মৃত্যুদন্ড কার্যকর

জাপানে ৭ গোষ্ঠী  নেতার মৃত্যুদন্ড কার্যকর

করতোয়া ডেস্ক : জাপানে সারিন গ্যাস হামলার অভিযোগে অম শ্রিংকিয়ে ডুমসডে গোষ্ঠীর সাত সদস্যের মৃত্যুদ- কার্যকর করেছে দেশটির সরকার। এরমধ্যে ছিলেন গোষ্ঠীর নেতা শোকো আসারাও। ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসির এক প্রতিবেদন থেকে এসব তথ্য জানা যায়। ১৯৯৫ সালে টোকিও আন্ডারগ্রাউন্ডে এই গোষ্ঠীর ভয়াবহ সারিন গ্যাস হামলায় ১৩ জন নিহত হয়েছিলেন। আহত হয়েছিলেন আরও হাজারো। সেই অপরাধের শাস্তি হিসেবে শুক্রবার সকালে টোকিও আটক কেন্দ্রে তাদের মৃত্যুদ- কার্যকর করা হয়। এই মৃত্যুদ-ের সিদ্ধান্ত নিয়ে জাপান আগে থেকে কিছু জানায়নি। রায় কার্যকরের পরে বিচারমন্ত্রণালয় থেকে নিশ্চিত করা হয়। ১৯৯৫ সালের সারিন গ্যাস হামলা ছাড়াও আরও কয়েকটি হত্যাকা-ের সঙ্গে জড়িত ছিল শোকো আসাহারা ও তার অনুসারীরা।

এছাড়া ১৯৯৪ সালেও একবার সারিন গ্যাস হামলা চালিয়েছিল তারা। সেবার মৃত্যু হয়েছিল আটজনের। আর আহত হয়েছিল ৬০০ জন। চলতি বছর জানুয়ারিতে রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করেছিল আসামিরা। আপিল খারিজ না হওয়া পর্যন্ত রায় ঝুলে ছিল। সকলের আপিল নিষ্পত্তি হলে একজনের যাবজ্জীবন কারাদ- হয়। এরপরই শুক্রবার মৃত্যুদ- কার্যকর করা হলো। আরও ছয়জন মৃতুদ-প্রাপ্ত আসামি রায় কার্যকরের অপেক্ষায় রয়েছে। শোকো আসাহারা, চিঝু ম্যাতসুমোটো নামেও পরিচিত, ১৯৮০ সালে ওই সংগঠন প্রতিষ্ঠা এবং বুদ্ধের পর নিজেকে দীক্ষাপ্রাপ্ত লোক বলে দাবি করেন। আম শিনরিকো ১৯৮৯ সালে জাপানে একটি ধর্মীয় সংগঠন হিসেবে সরকারি স্বীকৃতি লাভ করে। এরপর অল্প সময়ের মধ্যে এটি বিশ্বের দৃষ্টি আকর্ষণ করতে সক্ষম হয় এবং বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তের হাজার হাজার লোক এর অনুসারী হয়।