চুয়াডাঙ্গায় পুলিশ কর্মকর্তার গাড়িতে বোমা নিক্ষেপ, আটক ১

চুয়াডাঙ্গায় পুলিশ কর্মকর্তার গাড়িতে বোমা নিক্ষেপ, আটক ১

চুয়াডাঙ্গায় এক পুলিশ কর্মকর্তার গাড়ি লক্ষ্য করে বোমা নিক্ষেপ করেছে এক ব্যক্তি; তবে বোমাটি বিস্ফোরিত হয়নি। রোববার রাতে এ ঘটনার পর পুলিশ এক ব্যক্তিকে আটক করেছে।

তবে কী কারণে এ হামলা করা হয়েছে তা তাৎক্ষণিকভাবে জানা যায়নি। এর সঙ্গে নির্বাচনের কোনো সম্পর্ক আছে কিনা তাও জানাতে পারেনি পুলিশ।

চুয়াডাঙ্গা সদর থানার ওসি দেলোয়ার হোসেন খান বলেন, হামলার পর পালিয়ে যাওয়ার সময় পুলিশ পায়ে গুলি করে টিটু হোসেন নামের এক ব্যক্তিকে আটক করেছে।

গুলিবিদ্ধ টিটু হোসেনকে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে বলে তিনি জানান।

ওসি দেলোয়ার হোসেন বলেন, সহকারী পুলিশ সুপার আবু রাসেল রাত ৯টার দিকে জীবননগরের দিক থেকে চুয়াডাঙ্গার দিকে আসছিলেন।

“দর্শনা আকন্দবাড়িয়ার কাছে পৌঁছলে তার গাড়ি লক্ষ্য করে এক যুবক একটি বোমা নিক্ষেপ করে। বোমাটি গাড়িতে লাগলেও বিস্ফোরণ হয়নি।

“হামলার পর ওই যুবক পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করলে পুলিশ তার পায়ে গুলি করে। পরে তাকে আটক করে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়।”

টিটু হোসেন চুয়াডাঙ্গার দর্শনা ইসলাম বাজারের মৃত মোজাহিদ আলীর ছেলে।

পুলিশ টিটু হোসেনের রাজনৈতিক পরিচয় বলতে পারেনি। কেন সে পুলিশের গাড়িতে বোমা হামলা করেছে তাও পুলিশ তাৎক্ষণিকভাবে জানাতে পারেনি।