'খোদার কসম জান, আমি ভালোবেসেছি তোমায়'

'খোদার কসম জান, আমি ভালোবেসেছি তোমায়'

রাফিয়াত রশিদ মিথিলা ও  কলকাতার জনপ্রিয় পরিচালক সৃজিত মুখার্জির বিয়ের খবর শুনে সকাল থেকে দুই তারকার ভক্তরা নজর রেখেছিলেন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। কখন সৃজিত কিছু বলবেন, কখন মিথিলা প্রিয়তমকে নিয়ে মনের গোপন কথা লিখবেন তা দেখার জন্য মুখ উঁচিয়ে ছিলেন। তবে ভক্তদের মোটেই নিরাশ করেননি সৃজিত।
বছর খানেকের প্রেমপর্ব পেরিয়ে কাছে পাওয়া মনের মানুষের সঙ্গে আজ মালাবদল করবেন।  একে অপরকে স্বামী-স্ত্রী রূপে বরণ করে নেবেন মিথিলা ও সৃজিত। খুব স্বাভাবিকভাবেই এই মুহূর্তে টালিউডে সবচেয়ে চর্চিত বিষয় সৃজিত মুখোপাধ্যায়ের বিয়ে। তাইতো সৃজিত পেছনে ফিরলেন। প্রিয়তমকে নিয়ে লিখলেন মনের গোপন কথা।

তার ছবি জাতিস্মরে কবির সুমনের লেখা গানের কথাতেই মিথিলার জন্যে প্রকাশ্যে স্বীকার করলেন তার ভালোবাসার কথা- 'প্রথম আলোয় ফেরা, আঁধার পেরিয়ে এসে আমি/ অচেনা নদীর স্রোতে, চেনা চেনা ঘাট দেখে নামি/ চেনা তবু চেনা নয়, এভাবেই স্রোত বয়ে যায়/ খোদার কসম জান, আমি ভালোবেসেছি তোমায়'
জানা গেছে, আজ ৬ ডিসেম্বর সন্ধ্যায় রেজিস্ট্রি করে মালাবদল করবেন সৃজিত-মিথিলা। রেজিস্ট্রি হবে দক্ষিণ কলকাতার এক ফ্লাটে। সৃজিত পরবেন পায়জামা, পাঞ্জাবি ও জহরকোট। মিথিলা পরবেন লাল জামদানি। এরই মধ্যে কলকাতায় অবস্থান করছেন মিথিলার পরিবারের সদস্যরা। মিথিলার মেয়ে আয়রাও থাকবে বিয়ের অনুষ্ঠানে। ঢাকা থেকে গেছে ২ কেজি ওজনের চারটি ইলিশ। সৃজিতের মা, দিদি উপস্থিত থাকছেন বিয়েতে। টালিউডের পরিবারের সদস্যদের মধ্যে উপস্থিত থাকবেন রুদ্রনীল, শ্রীজাত, ইন্দ্রদীপ, যিশু, নীলাঞ্জনা, অনুপম।
মিথিলার সঙ্গে সম্পর্ক নিয়ে সৃজিত আগেই জানিয়েছিলেন, গত বছরের শেষ দিক থেকে তার সঙ্গে মিথিলার আলাপ। তারপর এ বছর ১৭ মার্চ সল্টলেকের অভিজাত হোটেলে এক মিডিয়া ব্যক্তিত্বের জন্মদিনের পার্টিতে তাদের দু’জনকে প্রথম প্রকাশ্যে দেখা যায়। তার ২৬৪ দিন পর, সারা জীবন একে অপরের পাশে থাকার অঙ্গীকার করছেন সৃজিত-মিথিলা।
মিথিলা-সৃজিতের পরিচয় হয় অর্ণবের একটি মিউজিক ভিডিওতে কাজের মাধ্যমে। সেখানে থেকেই বন্ধুত্ব তারপর প্রেম। যদিও মিথিলা বরাবর বলেছেন, তারা দুজন ভালো বন্ধু।