খুলনায় এক বাসায় দুই জনকে শ্বাসরোধ করে হত্যার অভিযোগ

খুলনায় এক বাসায় দুই জনকে শ্বাসরোধ করে হত্যার অভিযোগ

খুলনা প্রতিনিধি : খুলনা শহরে বাসায় এক ওয়ার্কশপ ব্যবসায়ী ও তার শিক্ষানবিশ কর্মচারীকে শ্বাসরোধ করে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। মেট্রোপলিটন পুলিশের অতিরিক্ত উপ-কমিশনার (দক্ষিণ) এম এম শাকিলুজ্জামান জানান, শুক্রবার রাত ১০টার দিকে খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে তাদের লাশ উদ্ধার করে। নিহতরা হলেন সোনাডাঙ্গা বাসস্ট্যান্ড এলাকার ওয়ার্কশপ ব্যবসায়ী আক্তার হোসেন (৫৫) ও তার শিক্ষনবিশ কর্মচারী মেহেদী (১৮)। পুলিশ কর্মকর্তা শাকিলুজ্জামান বলেন, আক্তার হোসেন সোনাডঙ্গা বাস টার্মিনাল এলাকার লেদ মেশিন ব্যবসায়ী। একই এলাকায় অবসরপ্রাপ্ত সেনা কর্মকর্তা মো. ইদ্রিস আলীর বাড়িতে এক রুমের একটি ভাড়ায় বাসায় একা থাকতেন তিনি। ঘরের দরজা খোলা ছিল।

আক্তারের লাশ ঘরের আড়ায় ঝোলানো আর মেহেদীর লাশ ঘরের খাটের ওপর ছিল। দুইজনকেই শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করছে পুলিশ। মেহেদী ইউসেপ স্কুলের কারিগরি বিভাগের ছাত্র ছিলেন জানিয়ে তিনি বলেন, তিনি আক্তারের কাছে মেশিনের কাজ শিখতেন। তবে কে বা কারা তাদের হত্যা করেছে সে বিষয়ে তিনি কিছু বলতে পারেননি। মেহেদ্রী সোনাডাঙ্গার কাছেই খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পাশে একটি বাসায় বাবার সঙ্গে থাকত। তার বাবা হুমায়ুন কবীর বলেন, মেহেদী বৃহস্পতিবার রাত ৮টার দিকে বাসা থেকে বের হওয়ার পর সারাদিন আর বাসায় ফেরেননি। লাশ ময়নাতদন্তের জন্য খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে বলে জানিয়েছেন সোনাডাঙ্গা থানার ওসি মো. মমতাজুল হক।