‘খুব শিগগিরই টাইগারদের কোচ নিয়োগ’

‘খুব শিগগিরই টাইগারদের কোচ নিয়োগ’

অবস্থান হয়ত নিশ্চিত ছিল না। তারপরও কাল সোমবার সন্ধ্যা পর্যন্ত শ্রীলঙ্কার হেড কোচ ছিলেন চন্ডিকা হাথুরুসিংহে; কিন্তু রাতেই সব সম্পর্ক চুকে বুকে গেছে লঙ্কান ক্রিকেট বোর্ডের সঙ্গে। শ্রীলঙ্কা ক্রিকেট বোর্ড তাকে পদচ্যুত করেছে। কাজেই এখন আর লঙ্কানদের কোচ নন হাথুরু। তবে কি এ লঙ্কানই আবার ফিরে আসছেন বাংলাদেশের ক্রিকেটে? জাতীয় দলের কোচের ভূমিকায় আবার দেখা যাবে হাথুরুকে?

যত সময় গড়াচ্ছে, ততই প্রশ্নটা জোরালো হচ্ছে। আগের দিন বোর্ড প্রধান নাজমুল হাসান পাপন বলেছিলেন, ১০ দিনের মধ্যে কোচের নাম ঘোষণা হবে।


আজ দুপুরে বিসিবি প্রধান নির্বাহী নিজামউদ্দীন চৌধুরী সুজন সে কথাটিই একটু ভিন্নভাবে উপস্থাপন করলেন। বিসিবি সিইও জানালেন, ‘হ্যাঁ, আমাদের চেষ্টা থাকবে অবশ্যই যত তাড়াতাড়ি সম্ভব, একজন কোচ নিয়ে আসার। আমরা সেভাবেই কাজ করছি।’

এদিকে বিশ্বকাপে টিম বাংলাদেশের পারফরমেন্সের মূল্যায়ন হওয়ার কথা। কে কেমন খেলেছেন, কার কি অবস্থা ছিল? সব পুঙ্খানুপুঙ্খ বিশ্লেষণ, পর্যালোচনা হবে বোর্ডে। সেটা কি হয়েছে? বোর্ড পরিচালক পর্ষদের গত সভায় তা নিয়ে কি কোন আলোচনা-পর্যালোচনা হয়েছে?

এমন প্রশ্নের উত্তরে বিসিবি প্রধান নির্বাহীর জবাব শুনে মনে হলো, তারা এখনো ম্যানেজার ও কোচের রিপোর্ট পাননি। তার অপেক্ষায় আছেন। তাইতো মুখে এমন কথা, ‘আপনারা জানেন যে, বিশ্বকাপের পরপরই আমাদের সিরিজ ছিল শ্রীলঙ্কায়। বোর্ড মিটিং যখন হয় আমাদের টিম শ্রীলঙ্কায় অবস্থান করছিলো। আমরা আশা করছি খুব শিগগিরই রিপোর্টটি পেয়ে যাবো। পরবর্তী বোর্ড সভায় এই বিষয়ে আলোচনা হতে পারে।’

একটা গুঞ্জন শোনা যাচ্ছে এ বছর বিপিএলের পর আগামী বছর জানুয়ারিতে পাকিস্তান আসতে পারে বাংলাদেশ সফরে। ব্যাপারটা কি সত্যি? না শুধুই গুঞ্জন?

সে প্রশ্নও উঠলো। প্রধান নির্বাহীর কৌশলী জবাব শুনে মনে হলো, ভিতরে ভিতরে কিছু একটা হচ্ছে। তবে সেটা হয়ত একদমই প্রাথমিক পর্যায়ে।

তাই বোর্ডের প্রধান নির্বাহী সেভাবে ধরা দিলেন না। পাশা কাটিয়ে যেতে যেতে শুধু এটুকু বললেন, ‘এটা অনেক পরের ব্যাপার। এখনও কিছু পাইনি। এখনও তারা (পাকিস্তানিরা) নিরপেক্ষ ভেন্যুতে খেলছে। শিডিউলিংয়ের ব্যাপারে তাদের সঙ্গে যখন কথা হবে তখন জানতে পারবো আসলে তারা কি চাচ্ছে।