কুলাউড়া ও ফুলছড়ির ওসি প্রত্যাহার

কুলাউড়া ও ফুলছড়ির ওসি প্রত্যাহার

পঞ্চম উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে পক্ষপাতমূলক আচরণের দোষে দুই থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তাকে (ওসি) প্রত্যাহারের নির্দেশ দিয়েছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)।

একজন হলেন মৌলভীবাজারের কুলাউড়া থানার ওসি শামীম মুসা, অন্যজন গাইবান্ধা জেলার ফুলছড়ি থানার ওসি বেলাল হোসেন।

দ্বিতীয় ধাপে ১১৬ উপজেলার ভোটের আগের দিন রোববার (১৭ মার্চ) বিকেলে সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান ইসি সচিব হেলালুদ্দীন আহমদ।

তিনি বলেন, পক্ষপাতমূলক আচরণের অভিযোগ পাওয়ায় তাদের প্রত্যাহার করে দ্রুত উপযুক্ত কর্মকর্তাকে দায়িত্ব দিতে পুলিশ প্রশাসনকে নির্দেশ দিয়েছে কমিশন।

সচিব বলেন, ১৬ জেলার ১১৬টি উপজেলায় সোমবার (১৮ মার্চ) ভোটগ্রহণ করা হবে। দ্বিতীয় ধাপের এ ভোটে চেয়ারম্যান পদে ২৩ জন, ভাইস চেয়ারম্যান পদে ১৩ জন ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ১২ জন বিনাপ্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন।

নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে ৩৩৭ জন, ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৫৪৮ জন এবং মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৪০ ০জন প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী রয়েছেন।

১১৬ উপজেলায় ৭ হাজার ৩৯টি কেন্দ্রে ভোটগ্রহণ করা হবে। এতে ১ কোটি ৭৯ লাখ ৯ হাজার ৬ জন ভোটার তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগের সুযোগ পাচ্ছেন।

নির্বাচনে আচরণবিধি ভঙ্গের দায়ে শনিবার (১৬ মার্চ) গাইবান্ধা-৫ আসন থেকে নির্বাচিত সংসদ সদস্য জাতীয় সংসদের ডেপুটি স্পিকার মো. ফজলে রাব্বী মিয়া এবং কক্সবাজার-৩ আসনে সংসদ সদস্য সাইমুম সরওয়ার কমলকে এলাকা ছাড়ার নির্দেশ দিয়েছিল নির্বাচন কমিশন। তার আগে ছয়জন সংসদ সদস্যকেও একই নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। এছাড়া সংসদ সদস্যরা যাতে আচরণ বিধি ভঙ্গ না করেন, সেজন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে স্পিকারকেও চিঠি দিয়েছে ইসি।

পঞ্চম উপজেলা পরিষদ নির্বাচন পাঁচধাপে সম্পন্ন করা হবে। ১০ মার্চ (রোববার) প্রথমধাপের ভোটগ্রহণ হয়েছে।