এরশাদের শারীরিক অবস্থার অবনতি, নেওয়া যাচ্ছে না বিদেশে

এরশাদের শারীরিক অবস্থার অবনতি, নেওয়া যাচ্ছে না বিদেশে

এরশাদের শারীরিক অবস্থার অবনতি হওয়ায় তাকে লাইফ সাপোর্টে রাখা হয়েছে। বিদেশে নিয়ে চিকিৎসা দেওয়ার মতো অবস্থা নেই বলে জানিয়েছেন পার্টির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান জিএম কাদের।

বৃহস্পতিবার (৪ জুলাই) সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায়  জাতীয় পার্টির বনানী অফিসে এরশাদের শারীরিক অবস্থা নিয়ে সবশেষ ব্রিফিংয়ে তিনি একথা বলেন।

এর আগে, দুপুর ১২টার দিকে জিএম কাদের সংবাদ সম্মেলনে বলেন, গত চার দিন ধরে হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের শারীরিক অবস্থা অপরিবর্তিত আছে।

চিকিৎসকদের বরাত দিয়ে তিনি বলেন, চিকিৎসকদের প্রত্যাশা অনুযায়ী তার শারীরিক উন্নতি হচ্ছে না। তবে, সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালের (সিএমএইচ) চিকিৎসকরা সাবেক রাষ্ট্রপতিকে বিশ্বমানের চিকিৎসা দিয়ে যাচ্ছেন।

গোলাম মোহাম্মদ কাদের বলেন, সিএমএইচের চিকিৎসকরা দেশি-বিদেশি বিশেষজ্ঞদের সঙ্গে আলাপ-আলোচনা করেই পল্লীবন্ধুর চিকিৎসা দিচ্ছেন। চিকিৎসকরা মনে করলেই তাকে বিদেশে নেওয়া হবে, অথবা বিদেশ থেকে বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক ডাকা হবে।

তিনি বলেন, জাপা চেয়ারম্যানের ফুসফুসের সংক্রমণ প্রত্যাশা অনুযায়ী কমছে না। প্রয়োজন অনুযায়ী কিডনিও কাজ করছে না। এ কারণে তার শরীরে কিছুটা পানি জমেছে। কিন্তু, সিএমএইচের বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকরা আন্তরিকভাবে কাজ করে যাচ্ছেন। এরশাদকে নিবিড় পর্যবেক্ষণে রেখেছেন চিকিৎসকরা।

আগামী শুক্রবার (৫ জুলাই) সারাদেশে মসজিদ-মন্দিরে  হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের রোগমুক্তির জন্য দোয়া ও মোনাজাত অনুষ্ঠিত হবে বলে জানান জিএম কাদের।