‘এটাকে তো খাটো করে দেখার অবকাশ নেই’

‘এটাকে তো খাটো করে দেখার অবকাশ নেই’

‘একজন লোক যিনি বহুভাবে আন্তর্জাতিকভাবে কানেক্টেড, বহুজনের সঙ্গে, তার ফেসবুক থেকে যদি একটি লাইভ পোস্ট দেওয়া হয় এবং যেখানে নাকি স্পর্শকাতর, মিথ্যা ও উসকানিমূলক বিষয় হয়, তবে এটাকে তো খাটো করে দেখার কোনো অবকাশ নেই।’  

মঙ্গলবার (৪ সেপ্টম্বর) আলোকচিত্রী শহিদুল আলমের জামিন আবেদন শুনতে হাইকোর্ট বেঞ্চ বিব্রত হওয়ার বিষয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে নিজ কার্যালয়ে অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম একথা বলেন।
 
অ্যাটর্নি জেনারেল বলেন, শহিদুল আলমের মামলাটি আজ শুনানির জন্য তালিকাভুক্ত ছিল। সকালে যখন তাদের আইনজীবী আবেদনটি শুনানির জন্য মেনশন করেছেন তখন বিচারপতি দু’জনের মধ্যে একজন বিব্রতবোধ করেছেন। ফলে মামলাটি আজ শুনানি হয়নি। এ মামলাটি ও মামলার নথিপত্র এখন প্রধান বিচারপতির কাছে যাবে। প্রধান বিচারপতি আবার অন্য কোনো বেঞ্চে আবেদনটি শুনানির জন্য নির্ধারণ করবেন।
 
বিব্রতবোধের কারণ বিষয়ে মাহবুবে আলম বলেন, বিষয়টি ইন বিটুইন দ্য জাজেস অ্যান্ড চিফ জাস্টিস। ওনারা (বিচারপতি) একজন কেন ব্রিবতবোধ করলেন। কাজেই এটা সব সময় যে আইনজীবীদের ব্যাখ্যা করতে হবে, এ কারণে বিব্রতবোধ করলাম, অ্যাজ এ ম্যাটার অব প্রাকটিস আমাদের কোর্টে কখনো হয়নি।