এখন স্বপ্ন দেখেন শিরীন শিলা

এখন স্বপ্ন দেখেন শিরীন শিলা

অভি মঈনুদ্দীন: ছোটবেলায় আইনি বিষয়ে পড়াশুনা করে ব্যারিষ্টার হবার স্বপ্ন ছিলো চিত্রনায়িকা শিরীন শিলার। তার মা তাকে প্রায়ই বলতেন বড় হলে তোকে আইন বিষয়ে পড়াশুনা করাবো। কিন্তু শিলা যতোই বড় হতে থাকলেন সেই পথে চলাও যেন একটু একটু করে সরে যেতে লাগলো। মনের অজান্তেই শিলা অভিনয়ের পথে এগিয়ে যেতে থাকলেন। অনেকটা হঠাৎ করেই শিলা সাদেক সিদ্দিকীর নির্দেশনায় একটি নাটকে ছোট্ট একটি চরিত্রে অভিনয় করেন। তারপর সালাহ উদ্দিন লাভলুর নির্দেশনায় ‘হিরো’, ‘বনমালা’ নাটকেও অভিনয় করেন। এসব নাটকে অভিনয় করতে গিয়ে তিনি গুণী অভিনেত্রী রাশেদা চৌধুরীর কাছ থেকে অনুপ্রেরণা পান চলচ্চিত্রে অভিনয় করার। সেই অনুপ্রেরণা নিয়েই চলচ্চিত্রে শিরীন শিলার যাত্রা শুরু হয়।

 শুরুতেই তিনি মোহাম্মদ হোসেনের ‘আই ডোন্ট কেয়ার’ চলচ্চিত্রে অভিনয়ের জন্য চুক্তিবদ্ধ হলেও তিনি শুটিং শুরুর এক মাস আগে বাদ পড়েন। তার স্থানে অভিনয় করেন ববি। কিন্তু থেমে থাকেননি শিরীন শিলা। চলচ্চিত্রে অভিনয় করতেই হবে-এমন একটা মনোবাসনা নিয়ে তিনি এগিয়ে চলেন। আর তাই পরবর্তীতে তিনি এখন পর্যন্ত তার অভিনীত চারটি চলচ্চিত্র মুক্তি পেয়েছে। সেগুলো হচ্ছে ওয়াজেদ আলী সুমনের ‘হিট ম্যান’, কাশেম ম-লের ‘ক্ষনিকের ভালোবাসা’, শাহীন সুমনের ‘মিয়া বিবি রাজি’ ও মুশফিকুর রহমান গুলজারের ‘মন জানে না মনের ঠিকানা’। শিরীন শিলা ব্যস্ত আছেন বেশ কয়েকটি চলচ্চিত্রের কাজ নিয়ে। কিছু কিছু চলচ্চিত্রের কাজ প্রায় শেষ আবার কিছু চলচ্চিত্রের শুটিং শুরু হলো মাত্র।

 ছটকু আহমেদ’র ‘এক কোটি টাকা’, মোঃ আসলামের ‘আমার সিদ্ধান্ত’ ও ইমদাদুল হক খানের ‘মন নিয়ে লুকোচুরি’ , মনতাজুর রহমান আকবরের ‘সরি’, মোস্তাফিজুর রহমান বাবুর ‘হৃদয় ছোঁয়া ভালোবাসা’ এবং শাহআলম ম-লের ‘দম’ চলচ্চিত্রের কাজ করছেন শিরীন শিলা। এই ছয়টি চলচ্চিত্রে শিরীন শিলার বিপরীতে অভিনয় করছেন ইমন, শাহরিয়াজ, বাপ্পী। শিরীন শিলা বলেন,‘ এক সময় শখের বশেই চলচ্চিত্রে অভিনয় করা শুরু  করি। আর এখন চলচ্চিত্রে অভিনয়ই আমার পেশা হয়ে উঠেছে। নিজেকে একজন ভালো অভিনেত্রী হিসেবে গড়ে তোলার লক্ষ্যে এখনো কাজ করে যাচ্ছি। যারা আমাকে নিয়মিত সহযোগিতা করছেন তাদের প্রতি কৃতজ্ঞ আমি। আর অবশ্যই ধন্যবাদ দিতে চাই রাশেদা চৌধুরী আন্টিকে। কারণ তিনিই আমাকে চলচ্চিত্রে অভিনয়ের জন্য অনুপ্রেরণা দিয়েছিলেন বলে আজ আমি চলচ্চিত্রে নায়িকা হয়ে কাজ করতে পারছি। দর্শকের ভালোবাসা নিয়ে আমি এগিয়ে যেতে চাই আগামীরদিনগুলো। ’ শিরীন শিলা জানান সিদ্ধেশ্বরী ডিগ্রী কলেজে তিনি সমাজকর্মতে অনার্স করছেন। তার বাবা আব্দুস সোবহান প্রধান ও মা রেজিয়া বেগম। অনার্স শেষে আইন বিষয়ে পড়াশুনা করার স্বপ্ন দেখছেন তিনি।