উত্তর কোরিয়ার সাথে আলোচনায় বসতে পারেন ট্রাম্প!

উত্তর কোরিয়ার সাথে আলোচনায় বসতে পারেন ট্রাম্প!

করতোয়া ডেস্ক : দুই কোরিয়ার মাঝে অপেক্ষাকৃত ফলপ্রসূ আলোচনার পর প্রশ্ন উঠেছে যুক্তরাষ্ট্রও উত্তর কোরিয়ার সঙ্গে আলোচনায় বসতে পারে কি না। মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পও বলেছেন, ‘সঠিক পরিস্থিতিতে’ তিনি উত্তর কোরিয়ার সঙ্গে কথা বলতে প্রস্তুত। ব্রিটিশ বার্তা সংস্থা রয়টার্সের এক প্রতিবেদনে এসব কথা বলা হয়। দক্ষিণ কোরিয়া থেকেও জানানো হয়েছে যে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প আশ্বস্ত করেছেন যে দুই-কোরিয়ার আলোচনার সময় কোনও সামরিক পদক্ষেপ নেওয়া হবে না। মার্কিন সংবাদমাধ্যমে ওয়াল স্ট্রিট জার্নালে প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছিলো উত্তর কোরিয়ার বিরুদ্ধে সামরিক পদক্ষেপ নিতে যাচ্ছেন ট্রাম্প। সেই ঘটনাও সত্য নয় বলে জানান দক্ষিণ কোরীয় প্রেসিডেন্ট মুন জা ইন।

 মুনের সঙ্গে কথা বলার পর হোয়াইট হাউসে ট্রাম্প সাংবাদিকদের বলেন, ‘কে জানে কি হবে?’  তিনি বলেন, আলোচনা সফল হয়েছে। আশা করি বিশ্বের জন্য এটা ভালো কিছু বয়ে আনবে। এরপর নরওয়ের প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাতের পর ট্রাম্প বলেন, উত্তর কোরিয়রা সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রের বিবাদ রয়েছে। তবে বর্তমানে অনেক ভালো কথঅবার্তা হচ্ছে। তিনি বলেন, আমি অনেক ইতিবাচক কিছু দেখছি। আমার খুবই ভালো লাগছে।  আশা করি আরও ভালো কিছু হবে।’ শক্তি দিয়েই শান্তি আসবে বলেও মন্তব্য করেন ট্রাম্প। এদিকে ইরানভিত্তিক সংবাদমাধ্যম পার্স টুডে জানায়, দুই কোরিয়ার মধ্যকার সাম্প্রতিক আলোচনা এবং আসন্ন শীতকালীন অলিম্পিকে উত্তর কোরিয়ার সম্ভাব্য অংশগ্রহণ নিয়ে বুধবার জায়ে-ইনের সঙ্গে প্রায় আধাঘণ্টা কথা বলেন ট্রাম্প।