ইটালিতে শিক্ষার্থীসহ বাসে আগুন দিল ‘ক্ষুব্ধ’ চালক

ইটালিতে শিক্ষার্থীসহ বাসে আগুন দিল ‘ক্ষুব্ধ’ চালক

করতোয়া ডেস্ক : ইটালির মিলানে অর্ধশত স্কুল শিক্ষার্থীসহ বাসে আগুন ধরিয়ে দিয়েছেন সেই বাসটির চালক। তবে পুলিশের দ্রুত পদক্ষেপে বড় ধরনের প্রাণহানী থেকে রক্ষা পায় শিক্ষার্থীরা। বিবিসি জানিয়েছে, সেনেগাল থেকে অভিবাসী হিসেবে ইটালিতে এসে নাগরিক হওয়া ওই বাস চালক স্কুল শিক্ষার্থীদের গন্তব্যের পরিবর্তে অন্যপথে নিয়ে গিয়ে বাসটিতে আগুন ধরিয়ে দেয়। শিক্ষার্থীদের একজনের অভিভাবকের কাছ থেকে খবর পেয়ে পুলিশ সদস্যরা দ্রুত বাসের জানালা ভেঙে শিক্ষার্থীদের উদ্ধার করে। বাসটিতে ৫১ জন শিশু ছিল। বাসের জানালা ভেঙে তাদেরকে বের করে নিয়ে আসে পুলিশ। উদ্ধারের সময় দেখা গেছে, কেউ কেউ বাসের সিটের সঙ্গে বাঁধা। তবে এ ঘটনায় কেউই গুরুতর আহত হয়নি। শিক্ষার্থীদের ১৪ জন ধোঁয়ায় সামান্য অসুস্থ হয়ে পড়ে। ৪৭ বছর বয়সী ওই বাস চালককে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

 পুলিশ জানিয়েছে, তার নাম উসেনু সি। আক্রমণের শিক্ষার্থীদের বরাতে পুলিশ জানিয়েছে, ইটালির কঠোর অভিবাসন নীতি নিয়ে ক্ষুব্ধ ওই বাসচালক দেশটির সমুদ্রে মৃত্যু বন্ধ না করলে শিক্ষার্থীদের সবাইকে হত্যার হুমকি দেন। মিলান পুলিশের মুখপাত্র মারকো পালমিরি বলেন, ‘সে চিৎকার করছিল: সমুদ্রে মৃত্যু বন্ধ করো, আমি কিন্তু সবাইকে শেষ করে দেবো।এক পর্যায়ে সে ছুরি নিয়ে শিক্ষার্থীদের শাসানোর সময় এক শিক্ষার্থী ফোনে তার অভিভাবককে ব্যাপারটি জানালে পুলিশ দ্রুত ঘটনাস্থলে পৌঁছায়। কিন্তু এর মধ্যেই বাসে আগুন লাগিয়ে দেন ওই চালক। ‘কেউ বাঁচবে না,’ চালক এ কথা বলেছিলেন বলে জানান বাসে থাকা এক শিক্ষক।বাসে আগুন লাগানোর এ ঘটনা থেকে সব আরোহীর অক্ষত রক্ষা পাওয়ার ঘটনাকে ‘অলৌকিক’ বলে মন্তব্য করেছেন মিলানের প্রধান আইনজীবী ফ্রান্সেসকো গ্রেকো। তিনি বলেন, ‘এখানে ভয়াবহ কিছু ঘটে যেত।’