আইপিএল খেলতে আগ্রহী বাংলাদেশের ৬ ক্রিকেটার

আইপিএল খেলতে আগ্রহী বাংলাদেশের ৬ ক্রিকেটার

ফ্র্যাঞ্চাইজিভিত্তিক ক্রিকেট টুর্নামেন্টগুলোর মধ্যে সবচেয়ে জমজমাট আসর হলো ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগ (আইপিএল)। এ টুর্নামেন্ট চলাকালীন প্রায় দেড়-দুই মাসের জন্য ক্রিকেট বিশ্বের মনোযোগ চলে আসে ভারতে। যেখানে দেখা মিলে বিশ্বের নামীদামী সব তারকাদের।

২০১১ সাল থেকে প্রায় প্রতি আসরেই বাংলাদেশ থেকেও অন্তত একজন খেলোয়াড় ছিলেন আইপিএলে। কিন্তু সাকিব আল হাসান নিষিদ্ধ থাকায়, আসন্ন মৌসুমে দেখা দিয়েছে সংশয়- আদৌ বাংলাদেশের কেউ থাকবেন তো আইপিএলে? নাকি এবার বাংলাদেশের ক্রিকেটপ্রেমীদের উপভোগ করতে হবে নিজ দেশের খেলোয়াড় ছাড়া আইপিএল?


এসকল প্রশ্নের উত্তর মিলবে আগামী ১৯ ডিসেম্বর। সেদিন কলকাতায় অনুষ্ঠিত হবে আইপিএল এর ২০২০ সালের আসরের নিলাম। আর এই নিলামে তথা আইপিএলে খেলার আগ্রহী ৯৭১ জন খেলোয়াড়ের কথা জানিয়েছে আয়োজকরা। যারা নিজেদের নাম নিবন্ধিত করেছেন আইপিএল খেলার আগ্রহী হিসেবে।

এ বিশাল তালিকায় বাংলাদেশ থেকেও রয়েছেন ৬ ক্রিকেটার। তবে কোন ৬ জন, তা প্রকাশ করেনি আইপিএল আয়োজক কর্তৃপক্ষ। অবশ্য এ তালিকায় নাম থাকা মানেই যে নিলামে ডাকা হবে- এমনটা নয়। আগামী ৯ ডিসেম্বরের মধ্যে অংশগ্রহণকারী দলগুলো নিজেদের পছন্দের সংক্ষিপ্ত তালিকা জমা দেবে আয়োজকদের কাছে। নিলামে শুধুমাত্র সেই ক্রিকেটারদের নামই ডাকা হবে।

আইপিএল খেলতে আগ্রহীর তালিকায় বাংলাদেশের ৬ ক্রিকেটারসহ বিদেশি রয়েছেন ২৫৮ জন। এছাড়া নাম নিবন্ধন করা ভারতের স্থানীয় ক্রিকেটারের সংখ্যা ৭১৩। এত ব্ড় তালিকা থেকে দল পাবেন শুধু ৭৩ জন ক্রিকেটার। কারণ নিজেদের প্রাথমিক স্কোয়াড গোছানোর পর এখন দলগুলোর খালি জায়গা রয়েছে মোট ৭৩টি।

বাংলাদেশের ৬ জনের সঙ্গে বিদেশি ক্রিকেটারদের মধ্যে আইপিএলে নিজেকে দেখতে চান আফগানিস্তানের ১৯ ক্রিকেটার, অস্ট্রেলিয়ার ৫৫ জন, ইংল্যান্ডের ২২, দক্ষিণ আফ্রিকার ৫৪, নিউজিল্যান্ডের ২৪, শ্রীলঙ্কার ৩৯, ওয়েস্ট ইন্ডিজের ৩৪, জিম্বাবুয়ের ৩, নেদারল্যান্ডস ও যুক্তরাষ্ট্রের ১ জন করে ক্রিকেটার।


এছাড়া ৯৭১ জন ক্রিকেটারের মধ্যে আছেন ভারতের হয়ে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট খেলা ১৯জন, অনভিষিক্ত ৬৯৪ জন, আন্তর্জাতিক ক্রিকেট খেলা বিদেশি ১৯৬ জন, এখনও অভিষেক না হওয়া ৬০ জন বিদেশি ও সহযোগী সদস্য দেশগুলো থেকে ২ জন ক্রিকেটার।