অবশেষে শূন্যের সঙ্গে বিচ্ছেদ টার্নারের

অবশেষে শূন্যের সঙ্গে বিচ্ছেদ টার্নারের

ইনিংসের ১৮তম ওভারে ডিপ স্কয়ার লেগে ঠেলে দিয়ে ১ রান নিলেন ব্যাটসম্যান। এতেই করতালি আর আনন্দের ঢেউ বয়ে গেল ডাগআউটে। মাঠে থাকা বোলার-ব্যাটসম্যানও হাসছেন। না সেই ১ রানে জয় পায়নি ব্যাটিং করা দল কিংবা কোনো মাইলফলকেও পৌঁছাননি সে ব্যাটসম্যান।

তবু কেন এ হাসি আর আনন্দ? কারণ পাঁচ ইনিংস পর টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে শূন্যের হাত থেকে রেহাই পেয়েছেন অস্ট্রেলিয়ান অলরাউন্ডার অ্যাশটন টার্নার। যিনি কিনা টানা পাঁচ ইনিংসে খালি হাতে ফিরে গড়েছিলেন বিশ্বরেকর্ড।


তাই তো শনিবার রাতে টার্নারের ১ রানেই স্বস্তি ফেরে রাজস্থান ডাগআউটে, শান্তি পান এ অজি অলরাউন্ডার নিজেও। শেষপর্যন্ত ৭ বলে ৩ রান করে অপরাজিত থাকেন টার্নার। কিন্তু তার এ ৩ রানের চেয়েও বড় হয়ে দেখা দেয় এতদিন পর শূন্যের সঙ্গে তার বিচ্ছেদের ঘটনা।

টার্নারের শূন্যের প্রতি ভালোবাসার শুরুটা গত ৯ ফেব্রুয়ারি তারিখ থেকে। অস্ট্রেলিয়ান বিগ ব্যাশে অ্যাডিলেড স্ট্রাইকার্সের বিপক্ষে সে ম্যাচে মুখোমুখি প্রথম বলেই বেন লাফলিনের শিকার হন টার্নার। এরপর ভারতের বিপক্ষে ২৪ ফেব্রুয়ারি ক্রুনাল পান্ডিয়ার বলে বোল্ড হওয়ার আগে ৫টি বল খেলতে পারেন তিনি।

আর চলতি আইপিএলে টানা ৭ ম্যাচে বেঞ্চে কাটানোর পর ১৬ এপ্রিল কিংস এলেভেন পাঞ্জাবের বিপক্ষে, ২০ এপ্রিল মুম্বাই ইন্ডিয়ানসের বিপক্ষে এবং ২২ এপ্রিল দিল্লি ক্যাপিট্যালসের বিপক্ষে প্রথম বলেই সাজঘরে ফেরেন টার্নার। পূরণ করেন টানা পাঁচ টি-টোয়েন্টি ম্যাচে অলআউট হওয়ার বিশ্বরেকর্ড।

আইপিএলে এর আগেও টানা তিন ম্যাচে শূন্য রানে আউট হওয়ার নজির দেখিয়েছেন ৫ ক্রিকেটার। তারা হলেন- গৌতম গম্ভীর (২০১৪), শার্দুল ঠাকুর (২০১৭), অশোক দিন্দা (২০০৯-১১), রাহুল শর্মা (২০১২-১৩) এবং পবন নেগি (২০১৮-১৯)।

তবে টানা পাঁচ টি-টোয়েন্টি ম্যাচে শূন্য রানে আউট হওয়ার নজির নেই আর কারো। টানা চার ম্যাচে শূন্য রানে আউট হওয়া খেলোয়াড়রা হলেন চন্দ্রশেখর গনপাথি (২০০৭-০৯), শেন শিলিংফোর্ড (২০০৮-১০), টিম সাউদি (২০১১-১২), ম্যাথু হোগার্ড (২০১১-১২) এবং লাসিথ মালিঙ্গা (২০১৩)।ইনিংসের ১৮তম ওভারে ডিপ স্কয়ার লেগে ঠেলে দিয়ে ১ রান নিলেন ব্যাটসম্যান। এতেই করতালি আর আনন্দের ঢেউ বয়ে গেল ডাগআউটে। মাঠে থাকা বোলার-ব্যাটসম্যানও হাসছেন। না সেই ১ রানে জয় পায়নি ব্যাটিং করা দল কিংবা কোনো মাইলফলকেও পৌঁছাননি সে ব্যাটসম্যান।

তবু কেন এ হাসি আর আনন্দ? কারণ পাঁচ ইনিংস পর টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে শূন্যের হাত থেকে রেহাই পেয়েছেন অস্ট্রেলিয়ান অলরাউন্ডার অ্যাশটন টার্নার। যিনি কিনা টানা পাঁচ ইনিংসে খালি হাতে ফিরে গড়েছিলেন বিশ্বরেকর্ড।


তাই তো শনিবার রাতে টার্নারের ১ রানেই স্বস্তি ফেরে রাজস্থান ডাগআউটে, শান্তি পান এ অজি অলরাউন্ডার নিজেও। শেষপর্যন্ত ৭ বলে ৩ রান করে অপরাজিত থাকেন টার্নার। কিন্তু তার এ ৩ রানের চেয়েও বড় হয়ে দেখা দেয় এতদিন পর শূন্যের সঙ্গে তার বিচ্ছেদের ঘটনা।

টার্নারের শূন্যের প্রতি ভালোবাসার শুরুটা গত ৯ ফেব্রুয়ারি তারিখ থেকে। অস্ট্রেলিয়ান বিগ ব্যাশে অ্যাডিলেড স্ট্রাইকার্সের বিপক্ষে সে ম্যাচে মুখোমুখি প্রথম বলেই বেন লাফলিনের শিকার হন টার্নার। এরপর ভারতের বিপক্ষে ২৪ ফেব্রুয়ারি ক্রুনাল পান্ডিয়ার বলে বোল্ড হওয়ার আগে ৫টি বল খেলতে পারেন তিনি।

আর চলতি আইপিএলে টানা ৭ ম্যাচে বেঞ্চে কাটানোর পর ১৬ এপ্রিল কিংস এলেভেন পাঞ্জাবের বিপক্ষে, ২০ এপ্রিল মুম্বাই ইন্ডিয়ানসের বিপক্ষে এবং ২২ এপ্রিল দিল্লি ক্যাপিট্যালসের বিপক্ষে প্রথম বলেই সাজঘরে ফেরেন টার্নার। পূরণ করেন টানা পাঁচ টি-টোয়েন্টি ম্যাচে অলআউট হওয়ার বিশ্বরেকর্ড।

আইপিএলে এর আগেও টানা তিন ম্যাচে শূন্য রানে আউট হওয়ার নজির দেখিয়েছেন ৫ ক্রিকেটার। তারা হলেন- গৌতম গম্ভীর (২০১৪), শার্দুল ঠাকুর (২০১৭), অশোক দিন্দা (২০০৯-১১), রাহুল শর্মা (২০১২-১৩) এবং পবন নেগি (২০১৮-১৯)।

তবে টানা পাঁচ টি-টোয়েন্টি ম্যাচে শূন্য রানে আউট হওয়ার নজির নেই আর কারো। টানা চার ম্যাচে শূন্য রানে আউট হওয়া খেলোয়াড়রা হলেন চন্দ্রশেখর গনপাথি (২০০৭-০৯), শেন শিলিংফোর্ড (২০০৮-১০), টিম সাউদি (২০১১-১২), ম্যাথু হোগার্ড (২০১১-১২) এবং লাসিথ মালিঙ্গা (২০১৩)।