সকাল ৯:২৬, শনিবার, ১৬ই ডিসেম্বর, ২০১৭ ইং
/ খেলাধুলা / এক সেশনেই অস্ট্রেলিয়ার কাছে হেরে গেল ইংল্যান্ড
এক সেশনেই অস্ট্রেলিয়ার কাছে হেরে গেল ইংল্যান্ড
ডিসেম্বর ৬, ২০১৭

দ্বিতীয় ইনিংসে যেখানে ঝড় তুলেছিল ইংলিস পেসাররা, সেখানে অস্ট্রেলিয়ান বোলাররা দাপট দেখাবেন না- তা কি করে হয়! হলোও না। অ্যাডিলেড টেস্টে ইট খেয়ে ইংলিশদের দিকে সোজা পাটকেল ছুঁড়ে দিল অস্ট্রেলিয়া। মিচেল স্টার্ক, প্যাট কামিন্স, জস হ্যাজলউড এবং নাথান লিওনের দারুণ নিয়ন্ত্রিন অথচ সাঁড়াসি আক্রমণের মুখে ইংল্যান্ড হেরে গেলো ১২০ রানে। সিরিজে ২-০ ব্যবধানে এগিয়ে গেল অস্ট্রেলিয়া।

দ্বিতীয় ইনিংসে জয়ের জন্য ৩৫৪ রানের লক্ষ্য দাঁড়িয়েছিল ইংল্যান্ডের নামনে। সেই রান তাড়া করতে নেমে চতুর্থ দিন ভালো লড়াই চালায় জো রুটের দল। চতুর্থ দিন শেষে ৪ উইকেট হারিয়ে তাদের সংগ্রহ ছিল ১৭৬ রান। পঞ্চম দিন প্রয়োজন ছিল আর ১৭৮ রান। হাতে ছিল ৬ উইকেট। সবচেয়ে বড় কথা উইকেটে ৬৭ রান নিয়ে ছিলেন অধিনায়ক জো রুট এবং ৫ রান নিয়ে ক্রিস ওকস।

কিন্তু আজ পঞ্চম দিনের শুরুতেই ভোজবাজির মত উল্টে যায় পুরো পরিস্থিতি। দিনের শুরুতে বল হাতে আক্রমণে আসেন জস হ্যাজলউড। তার দ্বিতীয় বলেই উড়ে গেলো ক্রিস ওকসের উইকেট। উইকেটের পেছনে টিম পাইনের হাতে ক্যাচ দিয়ে সাজঘরে ফিরে যান ওকস। ৫ রানেই থেকে গেলেন তিনি। দলীয় রানও থাকল একই।

দিনের তৃতীয় এবং নিজের দ্বিতীয় ওভার বল করতে এসেই জো রুটকে প্যাভিলিয়নে পাঠিয়ে দেন হ্যাজলউড। এই উইকেটের পরই মোটামুটি নিশ্চিত হয়ে যায় জিততে যাচ্ছে অস্ট্রেলিয়া। তবে অস্ট্রেলিয়ার এই জয়ে কিছুটা সময় ক্ষেপণ করেন উইকেটরক্ষক জনি বেয়ারেস্ট। আট নম্বরে নেমে তিনি খেলেন ৩৬ রানের একটি ইনিংস।

বেয়ারেস্ট শেষ চেষ্টা করেও পারলেন না ম্যাচ বাঁচাতে। মিচেল স্টার্কের বলে বোল্ড হয়েই ফিরতে হয়েছে তাকে। আজ দিনের প্রথম সেশনেই মাত্র ২২.২ ওভার ব্যাট করে আগের দিনের সঙ্গে মাত্র ৫৭ রান যোগ করতেই সাজঘরে বাকি ৬ উইকেট। শেষ পর্যন্ত ২৩৩ রানে অলআউট ইংল্যান্ড। অস্ট্রেলিয়া জিতে গেলো ১২০ রানে।

অস্ট্রেলিয়ার হয়ে মিচেল স্টার্ক ৮৮ রান দিয়ে নিলেন ৫ উইকেট। এছাড়া জস হ্যাজলউড এবং নাথান লিওন নিলেন ২টি করে উইকেট। প্যাট কামিন্স নেন ১ উইকেট। প্রথম ইনিংসে সেঞ্চুরি করা শন মার্শ জিতলেন ম্যাচ সেরার পুরস্কার।

এর আগে টস জিতে অস্ট্রেলিয়াকে ব্যাট করার আমন্ত্রণ জানান ইংলিশ অধিনায়ক জো রুট। ব্যাট করতে নেমে ইংলিশ বোলারদের দাপট সত্ত্বেও শন মার্শের সেঞ্চুরিতে ৮ উইকেট হারিয়ে ৪৪২ রানে ইনিংস ঘোষণা করে অস্ট্রেলিয়া। জবাব দিতে নেমে ২২৭ রানেই অলআউট হয়ে যায় ইংল্যান্ড।

প্রথম ইনিংসে ২১৫ রান এগিয়ে থাকলেও ইংল্যান্ডকে ফলোঅন করাননি স্টিভেন স্মিথ। তবে দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাট করতে নেমেই ইংলিশ বোলারদের তোপের মুখে পড়ে অসিরা। জেমস অ্যান্ডারসন আর ক্রিস ওকসের তোপের মুখে মাত্র ১৩৮ রানেই অলআউট হয়ে যায় অস্ট্রেলিয়া। অ্যান্ডারসন ৫টি এবং ওকস নেন ৪টি উইকেট। এরপরই জয়ের জন্য ৩৫৪ রানের লক্ষ্য দাঁড়ায় ইংল্যান্ডের সামনে।



লাইক দিয়ে সঙ্গে থাকুন :




Go Back Go Top