সোমবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৬
ad
২৪ এপ্রিল, ২০১৬ ১৫:৫০:১৪
প্রিন্টঅ-অ+
ভূমি সচিবসহ ৩ জনের বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার রুল
প্রজাবিলি সম্পত্তিতে মালিকানা দাবি করণের পরিপ্রেক্ষিতে হাইকোর্টের দেয়া কারণ দর্শানোর নোটিশের জবাব সঠিক সময়ে জমা না দেওয়ায় ভূমি মন্ত্রণালয়ের সচিব মেছবাহ উল আলমসহ ৩ জনের বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার নোটিশ জারি করেছেন হাইকোর্ট। একইসঙ্গে তাদের বিরুদ্ধে কেন আদালত অবমাননার দায়ে শাস্তি প্রদান করা হবে না, তা জানতে চানতে চেয়ে  রুল জারি করেছেন।

রোববার হাইকোর্টের বিচারপতি আশফাকুল ইসলাম এবং বিচারপতি জাফর আহমেদের সমন্বয়ে গঠিত বেঞ্চ এই আদেশ দেন। আদালতে মামলা পরিচালনা করেন খলিলুর রহমান।

ভূমি মন্ত্রণালয়ের সচিব মেছবাহ উল আলম ছাড়া অন্য দুইজন হলেন ভূমি সংস্করণ বোর্ডের চেয়ারম্যান মো. হাফিজুর রহমান এবং কোর্ট অফ ওয়ার্ডস ঢাকা নবাব অ্যাস্টেটের ম্যানেজার হানিফ। আগামী দুই সপ্তাহের মধ্যে সংশ্লিষ্টটদেরকে রুলের জবাব দিতে বলা হয়েছে।

জমিদারি প্রথা উচ্ছেদ এবং প্রজাদের মালিকানা ঘোষণার উদ্দেশ্যে ১৯৫০ সালে রাষ্ট্রীয় অধিগ্রহণ ও প্রজাস্বত্ত্ব আইন পাস করা হয়। ফলে জমিদারের পরিবর্তে সরকার নিজেই প্রজাদের কাছে বন্দোবস্তকৃত জমির খাজনা গ্রহণ শুরু করে। জানা যায়, রাজ লিভিং প্রজার স্বত্ত্বের দখলীয় সম্পত্তি ঢাকা নবাব স্টেটের জমিদার নবাব স্যার সলিমুল্লার এ উত্তরাধিকারী পক্ষে তাদের হেফাজতকারী মালিকানা দাবি করে। পরবর্তীতে রাজ লিভিং রিট করেন।

আদালত দখলীয় সম্পত্তি মালিকানা দাবিকরণ কেন বে আইনি ঘোষণা করা হবে না তা জানতে চেয়ে রুল জারি করেন। একইসঙ্গে কোর্ট অব ওয়ার্ডস নবাব অ্যাস্টেটের তত্ত্বাবধানে থাকা সম্পত্তির হিসাব ১০ ডিসেম্বরের মধ্যে দাখিলের নির্দেশ দেয়া হয়। কিন্তু এই কার্যকারিতা স্থগিত করতে ব্যর্থ হন। নির্ধারিত সময়ে মধ্যে কোর্ট অফ ওয়ার্ডস নবাব অ্যাস্টেস তার খাস দখলে থাকা সম্পত্তির হিসবা সঠিক সময়ে দাখিল না করায় আদালত তাদের বিরুদ্ধে নোটিশের রুল জারি করেন।
  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত

আইন ও অপরাধ এর অারো খবর