শনিবার, ১০ ডিসেম্বর ২০১৬
ad
২১ এপ্রিল, ২০১৬ ১৫:২২:০৮
প্রিন্টঅ-অ+
রিজার্ভ চুরি
‘পূর্ণাঙ্গ প্রতিবেদন পাওয়ার পর প্রকাশ করা হবে’
বাংলাদেশ ব্যাংকের রিজার্ভ থেকে অর্থ চুরির বিষয়ে তদন্ত কমিটির পূর্ণাঙ্গ প্রতিবেদন পেলে বিস্তারিত জানাবেন বলে জানিয়েছেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত।

অর্থমন্ত্রী বলেন, কমিটি অন্তর্বর্তীকালীন প্রতিবেদন জমা দিয়েছে। পূর্ণাঙ্গ প্রতিবেদন জমা দেওয়ার জন্য সময় দেওয়া আছে। তখন এ বিষয়ে বিস্তারিত জানানো হবে।

পূর্ণাঙ্গ প্রতিবেদন প্রকাশের ব্যাপারে তিনি বলেন, রিপোর্ট বের হবে আফটার দ্য ফাইনালাইজেশন অব রিপোর্ট।

বৃহস্প‌তিবার সকালে গুলশানে লাইলা টাওয়ারে বহুজাতিক প্রতিষ্ঠান প্রাইস ওয়াটার হাউজকুপারসের (পিডব্লিউসি) বাংলাদেশ অ‌ফিস উদ্বোধন শেষে সাংবা‌দিকদের প্রশ্নের জবাবে অর্থমন্ত্রী এ তথ্য জানান।
 
অন্তর্বর্তীকালীন প্রতিবেদন সম্পর্কে জানতে চাইলে মন্ত্রী বলেন, ‘রিপোর্ট‌টি আ‌মি প‌ড়ি নাই।’
রিজার্ভ চুরির ঘটনায় প্রাক্তন গভর্নর ড. আ‌তিউর রহমানের পদক্ষেপ যথার্থ ছিল কি না, জানত চাইলেও মন্ত্রী একই কথা বলেন।

প্রসঙ্গত, নিউইয়র্কের ফেডারেল রিজার্ভ ব্যাংকে থাকা বাংলাদেশ ব্যাংকের অ্যাকাউন্ট থেকে অর্থ চুরির বিষয়ে বুধবার সন্ধ্যায় সচিবালয়ে অর্থমন্ত্রীর কাছে অন্তর্বর্তীকালীন রিপোর্ট জমা দেয় তদন্ত কমিটি।

নিউইয়র্কের ফেডারেল রিজার্ভ ব্যাংকে থাকা বাংলাদেশ ব্যাংকের অ্যাকাউন্ট থেকে অর্থ চুরির ঘটনায় প্রাক্তন গভর্নর ড. মোহাম্মদ ফরাসউদ্দিনকে প্রধান করে তিন সদস্যের একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়। কমিটির অন্য দুই সদস্য হলেন অর্থ মন্ত্রণালয়ের ব্যাংকিং ডিভিশনের অতিরিক্ত সচিব গকুল চাঁদ দাস এবং বুয়েটের কম্পিউটার প্রকৌশল বিভাগের অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ কায়কোবাদ।
কমিটিকে রিজার্ভ চুরি নিয়ে দুটি প্রতিবেদন জমা দিতে বলা হয়েছিল। প্রথম প্রতিবেদনটি ৩০ দিনের মধ্যে এবং পূর্ণাঙ্গ প্রতিবেদনটি ৭৫ দিনের মধ্যে দেওয়ার সময় বেঁধে দেওয়া হয়েছিল।

এর আগে পিডব্লিউসির বাংলাদেশ শাখার উদ্বোধন করেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত। এ সময় উপ‌স্থিত ছিলেন বাংলাদে‌শে নিযুক্ত ব্রি‌টিশ হাইক‌মিশনার অ্যা‌লিসন ব্লাক, মার্কিন দূতাবাসের ডেপু‌টি চিফ অব মিশন ডে‌ভিড মিল, পিডব্লিউসির বাংলাদেশের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মামুন রশীদ প্রমুখ।

এর মাধ্যমে আন্তর্জাতিক মানের কর ও পরামর্শ সেবা দিতে বাংলাদেশে যাত্রা শুরু করলে পিডব্লিউসি।

বিশ্বের ১৫৭টি দেশে কর ব্যবস্থাপনা ও আর্থিক খাতের পরামর্শক হিসেবে কাজ করছে পিডব্লিউসি। ভারতের নয়টি শহরে তাদের কার্যালয় রয়েছে।

 
  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত

অর্থ-বাণিজ্য এর অারো খবর