বুধবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০১৬
ad
  • হোম
  • দেশজুড়ে
  • যুবদল নেতা হত্যার দায়ে বাগেরহাটে একজনের যাবজ্জীবন
১৯ এপ্রিল, ২০১৬ ১৫:১৮:১১
প্রিন্টঅ-অ+
যুবদল নেতা হত্যার দায়ে বাগেরহাটে একজনের যাবজ্জীবন

বাগেরহাটের মংলায় ১৩ বছর আগে যুবদল নেতা আব্দুল হালিম তালুকদার হত্যার ঘটনায় করা মামলায় একজনকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছে আদালত।

মঙ্গলবার দুপুরে বাগেরহাটের দায়রা জজ আদালতের বিচারক মিজানুর রমহান খান এই রায় দেন বলে রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী শেখ মোহাম্মদ আলী জানান।

দণ্ডপ্রাপ্ত মো. নূরুজ্জামান বাগেরহাটের রামপাল উপজেলার গৌরম্ভা ইউনিয়নের বর্ণি গ্রামের আব্দুল জলিল মাস্টারের ছেলে।

‘রায়ে নূরুজ্জামানকে ২০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরও ছয় মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ডের আদেশ দেওয়া হয়েছে।’

তবে মামলা চলাকালে জামিনে মুক্তির পর থেকে তিনি পলাতক রয়েছেন।

মামলার নথি থেকে জানা যায়, ২০০৩ সালের ১৫ ডিসেম্বর মংলা শহরের রিমঝিম সিনেমা হলের পেছনে মংলা পৌর যুবদলের সভাপতি ও সাবেক পৌর কাউন্সিলর আব্দুল হালিম তালুকদারসহ কয়েকজন ব্যাডমিন্টন খেলছিলেন।এ সময় দুটি রিকশা করে চারজন সেখানে গিয়ে যৌথ বাহিনীর পরিচয় দিয়ে হালিমকে ডাক দেন।

“হালিম তাদের দিকে এগিয়ে গেলে নূরুজ্জামান তাকে গুলি করে হত্যা করে।পরে স্থানীয়রা নূরুজ্জামানকে ধাওয়া করে অস্ত্র ও গুলিসহ আটক করে যৌথ বাহিনীর কাছে সোপর্দ করে।”

ঘটনার পরদিন নিহতের ভাই মোজাম্মেল হোসেন তালুকদার বাদী হয়ে নূরুজ্জামানসহ ৮ জনের নাম উল্লেখ করে ও অজ্ঞাত আরও ৭-৮ জনের বিরুদ্ধে মংলা থানায় একটি হত্যা মামলা করেন।

মামলার বরাত দিয়ে পিপি জানান, মামলাটি তদন্তের জন্য পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগের (সিআইডি) কাছে হস্তান্তর করা হয়।

বাগেরহাট জেলা সিআইডি পুলিশের তৎকালীন পরিদর্শক মো. রফিকুল ইসলাম জোয়াদ্দার ২০০৮ সালের ১৮ মে তদন্ত শেষে ১১ জনের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দাখিল করেন।

মামলার ১০ জন স্বাক্ষীর সাক্ষ্য গ্রহণ শেষে আদালত এ রায় দেয়।
 
  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত

দেশজুড়ে এর অারো খবর