রবিবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৬
ad
  • হোম
  • দেশজুড়ে
  • চেয়ারম্যানদের চেয়ে মেম্বারদের প্রচারণা বেশি
১২ এপ্রিল, ২০১৬ ১৮:০৯:৪৬
প্রিন্টঅ-অ+
চেয়ারম্যানদের চেয়ে মেম্বারদের প্রচারণা বেশি
উৎসবমুখর পরিবেশে জমে উঠেছে ফটিকছড়ির ইউপি নির্বাচন। প্রার্থীরা ভোটারদের বাড়ি বাড়ি যাচ্ছেন। করছেন উঠান বৈঠক ও পথসভা। রোদ-বৃষ্টি উপেক্ষা করে স্ব-স্ব প্রতীকে ভোট চাইছেন। আগামী ২৩ এপ্রিল অনুষ্ঠত হবে এ উপজেলার ১৫টি ইউনিয়নে নির্বাচন।

তবে নৌকা প্রতীক ও স্বতন্ত্র প্রার্থীদের প্রচারণার ব্যাপক আগ্রহ থাকলেও বিএনপি ও জামায়াত প্রার্থীদের প্রচারণা তেমন লক্ষ্য করা যাচ্ছে না। শংকায় রয়েছেন বিএনপি-জামায়াতের প্রার্থীরা। ইতোমধ্যে দু’একটি ইউনিয়নে বিরোধী দলের প্রার্থীদের প্রচারণায় হামলার ঘটনা ঘটেছে।

এ উপজেলায় ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান প্রার্থীদের চেয়েও সদস্য প্রার্থীরাই বেশি প্রচার-প্রচারণা চালাচ্ছে। ইতোমধ্যে চারটি ইউনিয়নে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। প্রথম ও দ্বিতীয় দফা নির্বাচেনর অবস্থা দেখে তৃতীয় ধাপের নির্বাচনে সরকারি দলের চেয়ারম্যান প্রার্থীরা প্রচার প্রচারণায় তেমন জোর দিচ্ছেন না। স্থানীয় অনেক ভোটারকে বলতে শোনা গেছে, ‘এটি চেয়ারম্যান নয় মেম্বারদের নির্বাচন।’

অন্যদের পাশপাশি প্রচারণায় নির্ঘুম সময় পার করছেন সাধারণ ও সংরক্ষিত আসনের সদস্য প্রার্থীরাও।

রোসাংগীরি ইউনিয়নে আওয়ামী লীগ প্রার্থী এস এম শোয়েব আল সালেহীন নৌকা প্রতীক নিয়ে দেব বাড়ি, শীলের হাট, রোসাংগীরি, হালদারকুল, আজিম নগর, মনুর বাড়ি, সোবান মোল্লার বাড়ি এলাকায় ব্যাপক গণসংযোগ করেন।

জাফতনগর ইউনিয়নে স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. সোলায়মান আনারস প্রতীক নিয়ে জাহানপুর, মুফতি বাড়ি, হাশেম শাহ বাড়ি, আবিদ শাহ মাজার এলাকায় গণ সংযোগ করেন। এ সময় তার সঙ্গে ছিলেন হাজি আবদুস ছালাম, মো. আমিনুল হক, মো. হারুন, কদর আলী, মো. সেলিম প্রমুখ।

বখতপুর ইউনিয়নে আওয়ামী লীগ প্রার্থী এস এম সোলায়মান বি. কম নৌকা প্রতীক নিয়ে চারাবটতল, সোনা গাজির বাড়ি, মালি পাড়া, গোলদার বাড়ি, লাল মিয়া বলির বাড়ি এলাকায় গণসংযোগ করেন। এ সময় উত্তর জেলা যুবলীগ নেতা মুজিবুর রহমান স্বপন, নুরুদ্দিন, সাজ্জাদ হোসেন, কাদের মেম্বার, প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

এ ইউনিয়নে স্বতন্ত্র প্রার্থী ফারুকুল আজম আনারস প্রতীক নিয়ে ঝর্নার দিঘীর পাড়, শান্তিরহাট, সাকুতলা, মহতের দিঘীর পাড়, দায়রা বাড়ি এলালায় ব্যাপক গণসংযোগ করেন।

ভূজপুর ইউনিয়নে তরিকত ফেড়ারেশনের প্রার্থী তাপস চন্দ বাবু ফুলের মালা প্রতীক নিয়ে কৈয়া চা বাগান, সন্দীপ পাড়া, আজিমপুর, বর্নিক পাড়া, কোটবাড়িয়া, এলাকায় ব্যাপক গণসংযোগ করেন। এ ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের প্রার্থী মো. ইব্রাহীম তালুকদারও নৌকা প্রতীক নিয়ে সন্দীপ পাড়া, আছরের ডেবা, হরিণা পাড়া, জঙ্গল কৈয়া এলাকায় গণসংযোগ করেন।

সুন্দরপুর ইউনিয়নে আওয়ামী লীগ প্রার্থী শাহ নেওয়াজ নৌকা প্রতীক নিয়ে কর্মী সমাবেশ করে আজিমপুর, ছিলোনিয়া, ছাদেক নগর, ফরেস্টর দোকান, চারাবটতল এলাকায় ব্যাপক গণসংযোগ করেন। এই ইউনিয়নে স্বতন্ত্র প্রার্থী মোহাম্মদ রেজাউল করিম আনারস প্রতীক নিয়ে ছোট ছিলোনিয়া, হরিণাদিঘী এলাকায় গণসংযোগ চালিয়েছেন।

Fathiksori

কাঞ্চন নগর ইউনিয়নে স্বতন্ত্র প্রার্থী রশিদ উদ্দিন চৌধুরী কাতেব আনারস প্রতীক নিয়ে ও হারুয়ালছড়ি ইউনিয়নে স্বতন্ত্র প্রার্থী ইকবাল হোসেন চৌধুরীও আনারস প্রতীক নিয়ে ব্যাপক গণসংযোগ করেছেন।

নারায়ণহাট ইউনিয়নে জাসদ নেতা আবু জাফর মাহমুদ সিকদার (স্বতন্ত্র প্রার্থী) ঘোড়া প্রতীক নিয়ে হালদা ভ্যালী চা বাগান, হাপানীয়া, চাঁনপুর, পিলখানা, নারায়ণহাট বাজার, মির্জারহাট এলাকায় ব্যাপক গণসংযোগ করেছেন।

পাইন্দং ইউনিয়নে বিএনপি প্রার্থী একেএম সরোয়ার হোসেন স্বপনের কারবালা টিল, পেলা গাজির দিঘী, বৃন্দাবনহাট, যুগিনীঘাটা এলাকায় ব্যাপক গণসংযোগ করার খবর পাওয়া গেছে।

হারুয়ালছড়ি ইউনিয়নে নৌকা মার্কার সমর্থনে কর্মী সমাবেশ করেছে আওয়ামী লীগ। ইউনিয়ন আ.লীগের সাবেক সভাপতি শামসুল আলমের সভাপতিত্বে উপস্থিত ছিলেন হারুয়ালছড়ি ইউনিয়ন আ.লীগের সভাপতি হাসান সরোয়ার আজম চৌধুরী।

এতে উপস্থিত ছিলেন, ইউনিয়ন যুবলীগের সাবেক সভাপতি মো. জানে আলম, যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক রবিউল হোসেন রুবেল সিকদার, সুলতান সাওদাগর, সোলমান সিকদার, জসিম মেম্বার, শিমুল ধর, মো. জসিম, মো. মান্নান, মো. শাহাজান, জানে আলম প্রমুখ।

দাঁতমারা ইউপিতে নৌকা প্রতীকের সমর্থনে কর্মী সমাবেশ হয়েছে। মুজিবুল হক মজুমদারের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি ছিলেন, উপজেলা আ.লীগের সভাপতি আফতাব উদ্দিন চৌধুরী। বক্তব্য রাখেন, আ.লীগ নেতা এইচ এম আবু তৈয়ব, নুরুল আলম চৌধুরী, মুক্তিযোদ্ধা খায়রুল বশর চৌধুরী, ওবাইদুল হক, আবদুল মান্নান, আবদুল খালেক সওদাগর, হামিদ হোসেন, ইসমাইল মজুমদার প্রমুখ।

কাঞ্চননগর ইউনিয়নে নৌকা মার্কার সমর্থনে কর্মী সমাবেশ করেছে যুবলীগ কর্মীরা। ইউনিয়ন আ.লীগের সহসভাপতি আবদুল মান্নানের সভাপতিত্বে সমাবেশে প্রধান অতিথি ছিলেন সাবেক ছাত্রলীগ নেতা এইচ এম আবু তৈয়ব। সভায় আ.লীগের প্রার্থী কাজী দিদারুল আলম, মুক্তিযোদ্ধা খায়রুল বশর, মুক্তিযোদ্ধা শামসুল আলম মেম্বার, আ.লীগ নেতা আলী আহাম্মদ মেম্বার, আক্তার উদ্দিন বাচ্চু, নুরুল ইসলাম, যুবলীগ নেতা জয়নাল আবেদীন, আবুল কালাম, মাসুদ পারভেজ প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।
  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত

দেশজুড়ে এর অারো খবর