মঙ্গলবার, ০৬ ডিসেম্বর ২০১৬
ad
১২ এপ্রিল, ২০১৬ ১৫:০৩:২৮
প্রিন্টঅ-অ+
বিপদজনক ইঁদুর মারা ট্যাবলেট
গুরুদাসপুর (নাটোর) প্রতিনিধি :
আলুর সাথে ময়দা আর জিংফসফাইড বিষ মিশিয়ে তৈরি হচ্ছে ইঁদুর মারা ট্যাবলেট। নাটোরের গুরুদাসপুরসহ আশপাশের হাটবাজারে বিক্রি হচ্ছে সেগুলো। গ্রামের সহজ-সরল মানুষ দেদারছে কিনে নিয়ে যাচ্ছে।

কিন্তু এর ভয়ানক ক্ষতিকর দিক সম্পর্কে সচেতন নয় ক্রেতা-বিক্রেতারা। অনুমোদনহীন, অপেশাদার কিছু মানুষ জীবিকা হিসেবে ভয়ানক এই পেশা বেছে নিয়েছে। শুধু যে আলু ময়দায় এটা তৈরি হচ্ছে তা নয়, গম ও শুঁটকি মাছের সাথে বিষ মিশিয়েও তৈরি হচ্ছে এই ইঁদুর মারা ওষুধ।
উপজেলার চাঁচকৈড়, নাজিরপুর, কাছিকাটাসহ পাশের বড়াইগ্রাম উপজেলার মৌখাড়া,
লক্ষীকোল ও সিংড়ার বিলদহরহাটে মজমা বসিয়ে এবং বাইসাইকেলে বিশেষ কায়দায় ঝুড়ি বসিয়ে হাতমাইকে ফলাও প্রচার চালিয়ে বিক্রি করা হচ্ছে। কিন্তু প্রশাসনিকভাবে কোন ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে না।

গুরুদাসপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক চিৎিসক রবিউল করিম জানান, জিংফসফাইড কালো রংয়ের পাউডার।

এটা খাওয়ার পর শুধু ইঁদুর নয়- মানুষ, পশুপাখি খাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে মারা যায়। পক্ষন্তরে ইুঁদুর মারার জন্য ক্লোরেট, ব্রোমা পয়েন্ট, ল্যানিরেট, রেটক্লিলার অপেক্ষাকৃত সহনীয়মাত্রা রয়েছে। তাছাড়া সনাতন পদ্ধতিতে এসব ওষুধ খালিহাতে তৈরি ও ব্যবহার স্বাস্থ্যের জন্য অত্যন্ত ঝুঁকিপূর্ণ।

তাৎক্ষণিক এর বিরুপ প্রভাব পরিলক্ষিত না হলেও ধীরেধীরে ক্ষতিকর প্রভাব শরীরে পড়ে।

উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর সুত্রে জানা গেছে, কৃষক জমির ফসল, ফল-মূল, বাসাবাড়ির সম্পদ রক্ষার জন্য অনুমোদিত কোম্পানীর ওষুধ কিনে ইঁদুর নিধনের চেষ্টা করেন। এসব কোম্পানীগুলো কমমাত্রার ক্লোরেট, ব্রোমা পয়েন্ট, ল্যানিরেট, রেটক্লিলার ওষুধ ব্যবহার করে থাকে। এসব ওষুধের সাথে ভাত, চালের গুঁড়া, গম ও শুঁটকি মাছ ও আলুতে মিশিয়ে প্রয়োগ করে থাকেন কৃষক। খাওয়ার দুই দিনের মধ্যে মারা যায় ইঁদুর।

সোমবার উপজেলার নাজিরপুর হাটে গিয়ে দেখা গেছে, আলুর সাথে ময়দা ও জিংফসফাইড নামে উচ্চমাত্রার কীটনাশক মিশিয়ে তৈরি করা ইঁদুর নাশক বড়ি বিক্রি হচ্ছে।

গুরুদাসপুর উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা মো. আব্দুল করিম বলেন, অনুমোদন ছাড়া খোলাবাজারে এধরনের বিষযুক্ত ওষুধ বিক্রি করার বিধান নেই। তিনি খোঁজ নিয়ে ব্যবস্থা নিবেন। অনুমোদিত কোম্পানীর বিষ কিনে ইঁদুর নিধনের পরামর্শ দিয়েছেন ওই কর্মকর্তা।
  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত

দেশজুড়ে এর অারো খবর