সকাল ৬:০৩, মঙ্গলবার, ১৭ই অক্টোবর, ২০১৭ ইং
/ রাজনীতি / রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে দিতে জাতীয় ঐক্যের বিকল্প নেই : বিএনপি
রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে দিতে জাতীয় ঐক্যের বিকল্প নেই : বিএনপি
সেপ্টেম্বর ২১, ২০১৭

মিয়ানমার থেকে পালিয়ে আসা রোহিঙ্গা শরণার্থীদের ফিরিয়ে দিতে বিশ্ব জনমত সৃষ্টির লক্ষ্যে বাংলাদেশে জাতীয় ঐক্য চায় বিএনপি। দলটির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, আমরা সব সময়েই বলে আসছি- রোহিঙ্গা সঙ্কট সমাধানে সরকারের জাতীয় ঐক্যের উদ্যোগ নেওয়া উচিত। কারণ, সংখ্যায় প্রায় এক মিলিয়ন ছাড়িয়ে যাওয়া মানুষকে মিয়ানমারে ফিরিয়ে দিতে হলে জাতীয় ঐক্যের কোনো বিকল্প নেই।

বৃহস্পতিবার দুপুরে রাজধানীর নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এক অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন ফখরুল। বিএনপি ঢাকা মহানগর দক্ষিণের উদ্যোগে রোহিঙ্গা ত্রাণ তহবিলে অর্থ প্রদান উপলক্ষে এই অনুষ্ঠান হয়। দক্ষিণের সভাপতি হাবিব-উন-নবী খান সোহেল ও সাধারণ সম্পাদক কাজী আবুল বাশার সংগঠনের পক্ষে ২ লাখ টাকার অর্থ বিএনপি মহাসচিবের হাতে হস্তান্তর করেন। জাতীয় ঐক্য সৃষ্টি সম্পর্কে সরকার বা রাজনৈতিক দলগুলোর সাথে যোগাযোগ হয়েছে কিনা প্রশ্ন করা হলে মির্জা ফখরুল বলেন, এগুলো তো আমরা বলতে বলতে ক্লান্ত হয়ে গেছি। আমাদের সরকার তো কখনো ঐক্যের কথা বিশ্বাসই করে না। সংস্কৃতিতে একটা কথা আছে- এক নেইবো দ্বিতীয়াম। অর্থাৎ আমি ছাড়া আর কেউ নেই, আওয়ামী লীগ ছাড়া কেউ নেই।

সুতরাং তারা একাই সবকিছু করতে চায়। দুঃখজনক ব্যাপার হলো, তারা (সরকার) এই ইস্যুটাতে প্রথমদিকে কোনো গুরুত্বই দেয়নি। উপরন্তু তারা রোহিঙ্গাদের ঠেলে পেছনে পাঠিয়ে দিতে চেয়েছিলেন। কিন্তু পরে বিএনপিসহ দেশবাসীর সোচ্চার কন্ঠ উচ্চারিত হওয়া ও জনমত তৈরি হওয়ার কারণে বিশ্ববাসী যখন সোচ্চার হয়েছে, এগিয়ে আসতে শুরু করেছে- তখনই তারা (সরকার) পদক্ষেপ নিতে বাধ্য হয়েছে। তবে সরকার এখন পর্যন্ত সেখানে প্রোপার ম্যানেজমেন্ট তৈরি করতে পারেননি। তাই সরকারকে বলব, অবিলম্বে এই বিষয়ে ব্যবস্থা গ্রহণ করুন। রোহিঙ্গা সঙ্কট মোকাবিলায় সমগ্র বিশ্বকে এগিয়ে আসার আহ্বান জানিয়ে বিএনপির মহাসচিব বলেন, মানবতার স্বার্থে রোহিঙ্গাদের পাশে দাঁড়ান এবং গণহত্যা বন্ধ করতে ও রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নিতে মিয়ানমারকে বাধ্য করুন। এ সময় বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতা মীর সরফত আলী সপু, আসাদুল করিম শাহীন, অধ্যাপক আমিনুল ইসলাম, দক্ষিণের সাংগঠনিক সম্পাদক সাইফুল ইসলাম পটুসহ মহানগর নেতারা উপস্থিত ছিলেন।

 



লাইক দিয়ে সঙ্গে থাকুন :




Go Back Go Top